রাজনীতি

করণিক আখতার এর ছবি

তা’ হবে না, তা’ হবে না --

করণিক আখতার এর ছবি

দলীয় কোন্দলগুলো পাতানো খেলা

করণিক আখতার এর ছবি

দলীয় কোন্দলগুলো পাতানো খেলা

করণিক আখতার এর ছবি

পূর্বপ্রস্তুতি : ১১(এগারো)

করণিক আখতার এর ছবি

লিজ ভোগের পরিণামে

Sany Saha এর ছবি

নারায়ণগঞ্জে ‘রক্ত পিপাষু খালেদার’ ছবিতে আগুন

‘রক্ত চাই, আরো রক্ত, রক্ত পিপাষু খালেদা জিয়া’ স্লোগান সহ বিভিন্ন স্লোগান দিয়ে বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া, বিএনপির নেতা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী, জামায়াত নেতা আব্দুল কাদের মোল্লা, মতিউর রহমান

কালবেলা এর ছবি

পাক-দালাল

পাকিস্তানিপন্থী বাঙালি নেতারা ও প্রচারমাধ্যমগুলো বাংলাদেশের স্বাধীনতার যুদ্ধকে কোনোমতেই মেনে নিতে পারে না। নির্বাচনে সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জনের পরও পাঞ্জাবি শাসকগোষ্ঠী ও সমরনায়করা বাঙালির হাতে ক্ষমতা না দিয়ে ২৫শে মার্চ থেকে নির্বিচারে গণহত্যা, লুণ্ঠন ও ধর্ষণ করে পূর্ব-বাংলাকে দখলে রাখতে চায়। দল হিসেবে শুধু জামায়াতে ইসলামিই মুক্তিযোদ্ধের বিরোধিতা করে না, বরং রাজাকার, আল-বদর ও আল-শামস বাহিনী গড়ে তুলে। ওরা পাকিস্তানি সৈন্যদের পথঘাট চিনিয়ে দেয় এবং মুক্তিবাহিনী বা মুক্তিযুদ্ধের সমর্থক ও বুদ্ধিজীবীদের নির্বিচারে হত্যা করে। বাঙালি রমণী পাকিস্তানি সৈন্যদের কাছে সরবরাহ করার দায়িত্বও অকৃত্রিম আন্তরিকতার সঙ্গে পালন করে। তারা ও তাদের সংবাদ-মাধ্যম বাঙালির জাতীয় জীবনে এক নতুন অধ্যায় রচনা করে। তারা স্বাধীনতা, গণতন্ত্র, সমাজতন্ত্র ও শোষণহীন সমাজ প্রতিষ্ঠার বিপক্ষশক্তি হিসেবে কঠিন সংগ্রামের আহবান জানায়। পাক-দালাল ও তাদের সংবাদ-মাধ্যমের কর্মকা-ের (এপ্রিল-আগস্ট ১৯৭১) একটি সংক্ষিপ্ত চিত্র তুলে দেওয়া হল...

করণিক আখতার এর ছবি

মনোনয়ন সভায় মনোনীতের প্রতি

তুমি যেখানে যার প্রতিনিধি, সে-ই সেখানে তোমার মালিক কিম্বা অভিভাবক। এখানে তোমাকে প্রতিনিধি বানাতে পারলে, মনে রেখো, আমরাই তোমার অভিভাবক হয়ে থাকবো। তোমাকে অন্য কারো কাছে করুণাপ্রার্থী হওয়া থেকে মুক্ত রাখবো, এ আমাদের ঐক্যবদ্ধ শক্ত প্রতিজ্ঞা। আমাদেরকে অগ্রাহ্য ক’রে আত্মঘাতী হবার ঝুঁকি নিয়ো না।

করণিক আখতার এর ছবি

রাজতন্ত্র থেকে গণতন্ত্র

যেকোনো ব্যক্তি চাইলেই যেকোনোভাবে ক্ষমতা দেখিয়ে মালিকের আসনটি নিজে দখল করে নিতে পারে। এমনকী, মিথ্যাশ্রয়ী হয়েও ধরা পড়ার আগে পর্যন্ত মালিক সেজে থাকা যায়। যেকেউ চাইলেই নিজে মালিক হতে পারে কিম্বা অন্যকে মালিক বানাতে পারে। মালিক হওয়ার জন্য কোনো দক্ষতাই বিবেচ্য নয়। মালিক যাকে তার সাময়িক প্রতিনিধি হিসেবে বেছে নেয়, তারও কোনো কর্ম-দক্ষতার লিখিত বা অলিখিত সনদ থাকা জরুরি নয়, মালিকের হয়ে মালিকের চাওয়াটুকু চাইতে পারার যোগ্যতাই যেকোনো প্রতিনিধির যোগ্যতা হিসেবে গণ্য। দক্ষতা বিচার্য কেবল কর্মীদের কর্মক্ষেত্রে।

করণিক আখতার এর ছবি

প্রসঙ্গ : হরতালের বৈধতা

নিশ্চয়ই, হরতাল, কোনো দলোগণের দলোতান্ত্রিক অধিকার নয়। জনগণের নাম ভাঙ্গিয়ে যখন বিভিন্ন দলোগণ হরতালকে ‘জনগণের গণতান্ত্রিক অধিকার’ বোলে বোলে, বোলচালে হরতালের বৈধতা প্রতিষ্ঠা করতে চাই, আমরা যারা বলি, ‘জ

পৃষ্ঠাসমূহ

Subscribe to রাজনীতি