কালবেলা প্রতিবেদক
প্রকাশ : ০৯ জুন ২০২৩, ১২:০০ এএম
প্রিন্ট সংস্করণ

অর্পিত সম্পত্তি নিয়ে সব মামলা চলবে ট্রাইব্যুনালে

প্রত্যর্পণযোগ্য সম্পত্তি প্রত্যর্পণ না হওয়া পর্যন্ত জেলা প্রশাসকের (ডিসি) নিয়ন্ত্রণে থাকবে এবং তিনি প্রচলিত আইন অনুযায়ী তা ইজারা দেবেন—আইনের এমন বিধান বৈধ বলে রায় দিয়েছেন হাইকোর্ট। এ ছাড়া এ-সংক্রান্ত সব মামলার আবেদন অর্পিত সম্পত্তি প্রত্যর্পণ ট্রাইব্যুনালে দাখিল করতে হবে, আইনের এই বিধানও বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে। অর্পিত সম্পত্তি প্রত্যর্পণ আইনের তিনটি ধারার বৈধতা নিয়ে করা দুটি রিট গতকাল বৃহস্পতিবার খারিজ করে এ রায় দিয়েছেন হাইকোর্টের বৃহত্তর বেঞ্চ। বিচারপতি নাইমা হায়দারের নেতৃত্বাধীন হাইকোর্টের তিন সদস্যের এই বৃহত্তর বেঞ্চের অন্য দুই সদস্য ছিলেন বিচারপতি সহিদুল করিম ও বিচারপতি এস এম কুদ্দুস জামান।

রায়ে হাইকোর্ট বলেন, অর্পিত সম্পত্তি আইনের ৯, ১৩ ও ১৪ ধারা মৌলিক অধিকারের পরিপন্থি নয়। অর্পিত সম্পত্তি জেলা প্রশাসকের অধীনে থাকবে এবং জেলা প্রশাসক প্রয়োজনে লিজ দিতে পারবেন। রায়ের পর ভূমি মন্ত্রণালয়ের পক্ষে শুনানিকারী জ্যেষ্ঠ আইনজীবী মনজিল মোরসেদ জানান, এ রায়ের ফলে অর্পিত সম্পত্তির তদারকি ও লিজ দেওয়ার ক্ষমতা

জেলা প্রশাসকদের হাতেই রইল এবং এ-সংক্রান্ত মামলা কেবলমাত্র অর্পিত সম্পত্তি প্রত্যর্পণ ট্রাইব্যুনালেই দায়ের করার বাধ্যবাধকতা তৈরি হলো। আর বর্তমানে অর্পিত সম্পত্তি ট্রাইব্যুনালের বাইরে দেশের অন্য আদালতে চলমান অর্পিত সম্পত্তি প্রত্যর্পণ সম্পর্কিত মামলাগুলো অচল হয়ে গেল।

ওই কোর্টের ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল অমিত দাশ গুপ্ত বলেন, এ রায়ের ফলে ২০১২ সালে গেজেট প্রকাশের পর ট্রাইব্যুনালে অর্পিত সম্পত্তি নিয়ে যেসব মামলা হয়েছে সেগুলোর বিচার চলতে থাকবে; কিন্তু ট্রাইব্যুনাল ছাড়া অন্য দেওয়ানি আদালতে যেসব মামলা হয়েছে ২০১২ এর আগে বা পরে, সেগুলো বাতিল হয়ে যাবে।’ অমিত দাশ গুপ্ত আরও জানান, যদি কারও মামলা ট্রাইব্যুনাল এবং দেওয়ানি আদালত দুই জায়গাতেই থেকে থাকে, তাহলে শুধু ট্রাইব্যুনালের মামলাটিই চলবে। অন্যটি বাতিল হয়ে যাবে। অর্পিত সম্পত্তি প্রত্যর্পণ আইন কার্যকর হওয়ার পর দেওয়ানি আদালত থেকে মামলা ট্রাইব্যুনালে স্থানান্তর করার জন্য সময় দেওয়া হয়েছিল বলেও জানান তিনি। আদালতে দুই রিটের পক্ষে শুনানি করেন সিনিয়র আইনজীবী কামরুল হক সিদ্দিকী ও মো. ওমর ফারুক।

খুলনার শ্যামল কুমার সিংহ এবং চট্টগ্রামের মশিউর রহমান আইনের ৯, ১৩ ও ১৪ ধারার বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে রিট আবেদন দুটি করেছিলেন। হাইকোর্ট ওই বছর রুল জারি করে চট্টগ্রাম ও খুলনার সংশ্লিষ্ট সম্পত্তির অবস্থান ও দখলের ওপর স্থিতাবস্থা জারি করে। সেই রুলের ওপর চূড়ান্ত শুনানি শেষে বৃহস্পতিবার রায় হলো।

২০০১ সালের অর্পিত সম্পত্তি প্রত্যর্পণ আইনের ৯(১) ধারায় বলা হয়েছে, ‘গেজেটে প্রকাশিত ক তফসিলভুক্ত অর্পিত সম্পত্তির মালিক উক্ত সম্পত্তি তাহার অনুকূলে প্রত্যর্পণের জন্য, উক্ত সম্পত্তির তালিকা প্রকাশের ৩০০ (তিনশত) দিনের মধ্যে, ট্রাইব্যুনালের নিকট আবেদন করিতে পারিবেন এবং আবেদনের সহিত তাহার দাবীর সমর্থনে সকল কাগজপত্র সংযুক্ত করিবেন।’ এ ছাড়াও এ ধারায় প্রত্যর্পণযোগ্য সম্পত্তির তালিকা প্রকাশ করার বিষয়ে বলা আছে।

আইনের ১৩ ধারায় প্রত্যর্পণযোগ্য সম্পত্তি-সংক্রান্ত মামলার অ্যাবেটমেন্ট (বাতিল) কার্যধারা বন্ধ ও ট্রাইব্যুনালে দাবি উত্থাপন বিষয়ে বলা আছে। ধারাটির ভাষ্য, ‘সরকারি গেজেটে প্রকাশের তারিখে যদি কোনো আদালতে এমন দেওয়ানি মামলা অনিষ্পন্ন থাকে, যা ওই তালিকায় অন্তর্ভুক্ত কোনো সম্পত্তিতে স্বত্ব দাবি করে বা তা অর্পিত সম্পত্তি মর্মে দাবি করে কোনো প্রতিকার প্রার্থনা করা হলে মামলায় সম্পত্তির যতটুকু জড়িত, ততটুকু বাবদ মামলাটি আপনা-আপনি অ্যাবেটেড (বাতিল) বলে গণ্য হবে।’ আর ১৪ ধারায় প্রত্যর্পণযোগ্য সম্পত্তি জেলা প্রশাসকের নিয়ন্ত্রণ ও অস্থায়ী ইজারা প্রদান বিষয়ে বলা আছে।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

ইতিহাসের এই দিনে যত ঘটনা

গ্রিজমানদের খালি হাতেই ফেরত পাঠাল ইন্টার মিলান  

একটি হুইল চেয়ারের আকুতি প্রতিবন্ধী সিয়ামের

ফেব্রুয়ারি উপলক্ষে চবিতে ফুলের দাম বেড়েছে ৩ গুন

সীমান্তে শেষবারের মতো বোনের লাশ দেখলো স্বজনেরা

‘উদ্যোক্তা তৈরির মাধ্যমে কর্মসংস্থান তৈরি করতে চাই’-প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী

‘ডাল ভাত খেয়েও যুদ্ধ করতে পারি’

ভাষা শহীদদের প্রতি রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা

কোম্পানি রিটার্নের মেয়াদ ২ মাস বাড়ানোর দাবি এফবিসিসিআইর

ন্যায্যতা সম্পর্কিত সংসদীয় ককাস / উন্নয়নমূলক পদক্ষেপে ন্যায়বিচার নিশ্চিত করার আহ্বান 

১০

এমপিদের থোক বরাদ্দের আগে জবাবদিহিতা নিশ্চিতের দাবি টিআইবির

১১

চাকরি গেল জাবির আলোচিত সেই শিক্ষকের

১২

পঞ্চগড়ে বন্যহাতির আক্রমণে যুবক নিহত

১৩

অনলাইনে ভিডিও দেখে গামছা বিক্রেতার ছেলের মেডিকেলে চান্স

১৪

বাড়ছে বিদ্যুৎ-গ্যাসের দাম

১৫

‘দুই-তিনটা লাশ ফেলে দেব’- ছাত্রলীগ নেতার হুমকি

১৬

বোরকা পরে বোনের পরীক্ষা দিতে এসে আটক ভাই

১৭

ভক্তদের বিরাট-আনুশকার সুখবর

১৮

নতুন এমপিওভুক্ত মাদ্রাসায় রমরমা ‘ব্যাকডেট’ নিয়োগ বাণিজ্য

১৯

রাসেল ঝড়ে রংপুরকে হারাল কুমিল্লা

২০
X