স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশ : ১১ জুন ২০২৪, ০৩:৫০ পিএম
আপডেট : ১১ জুন ২০২৪, ০৩:৫৭ পিএম
অনলাইন সংস্করণ

চার রান না ‘পাওয়া’য় নেটিজেনদের ক্ষোভ

মাহমুদউল্লাহকে আউট দিয়েও সিদ্ধান্ত পরিবর্তনে বাধ্য হন আম্পায়ার। ছবি : সংগৃহীত
মাহমুদউল্লাহকে আউট দিয়েও সিদ্ধান্ত পরিবর্তনে বাধ্য হন আম্পায়ার। ছবি : সংগৃহীত

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে দক্ষিণ আফ্রিকাকে প্রথমবারের মতো হারানোর দ্বারপ্রান্তে ছিল বাংলাদেশ। তবে একেবারে তীরে এসে তরী ডুবেছে টাইগারদের। বোলারদের দাপটে প্রোটিয়াদের ১১৩ রানে আটকে দিয়েও চার রানে ম্যাচ হারতে হয় টাইগারদের।

এ হারে বাংলাদেশের ব্যাটারদের দায় যেমন আছে, তেমনি রয়েছে প্রশ্নবিদ্ধ আম্পায়ারিংয়েরও। নেটিজেনদের দাবি বিতর্কিত আম্পায়ারিংয়ের কারণেই ম্যাচ হেরেছে বাংলাদেশ। বিষয়টি নিয়ে সমালোচনার ঝড় বইছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। সাবেক ক্রিকেটার থেকে শুরু করে সাধারণ ক্রিকেট ভক্ত, সকলে প্রশ্ন তুলেছেন আম্পায়ারিং নিয়ে।

সোমবার (১০ জানুয়ারি) বাংলাদেশ সময় রাতে দক্ষিণ আফ্রিকার দেওয়ার ১১৪ রানের টার্গেটে ব্যাট করছিল বাংলাদেশ। দ্রুত ৪ উইকেট হারিয়ে ধুঁকতে থাকা টাইগারদের পথ দেখান মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ও তাওহীদ হৃদয়। ১৭তম ওভার শুরুর সময় জয়ের জন্য বাংলাদেশের প্রয়োজন ছিলেন ২৪ বলে ২৭ রান।

কিন্তু নাটকীয় সব ঘটনা ঘটে ওটনিল বার্টম্যানের করা ইনিংসের ১৭তম ওভারে। প্রথম বলটি মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের প্যাডে লেগে ফাইন লেগ দিয়ে চলে যায় বাউন্ডারির বাইরে। প্রোটিয়া ফিল্ডারদের আবেদনে সঙ্গে সঙ্গে আঙুল তুলে রিয়াদকে আউট ঘোষণা করেন আম্পায়ার।

দ্রুত রিভিউ নেন মাহমুদউল্লাহ। এতে দেখা যায় বলটি লেগ স্ট্যাম্পের অনেক বাইরে ছিল। ফলে বাধ্য হয়ে সিদ্ধান্ত বদলাতে হয় আম্পায়ারকে। রিভিউতে মাহমুদউল্লাহ আউট থেকে বাঁচলেও ক্ষতি হয়ে যায় চার রান হারিয়ে। আর এই চার রানেই ম্যাচ হারে টাইগাররা।

ম্যাচের সেই আউট নিয়ে বিশ্লেষকদের সঙ্গে সমালোচনায় মেতেছেন সামাজিকমাধ্যম ব্যবহারকারীরা। বাংলাদেশের ফেসবুক ব্যবহারকারীরা এ আউট নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন বারবার। দাবি তুলেছেন আইসিসির এই অদ্ভুত নিয়ম পরিবর্তনের।

এক ব্যবহারকারী সরাসরি এ ম্যাচের আম্পায়ারদের যোগ্যতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। ফেসবুকের বাইরেও সামাজিকমাধ্যমের আরেকটি প্ল্যাটফর্ম এক্সে (সাবেক টুইটার) বাংলাদেশের পক্ষে ভক্তরা পোস্ট করছেন। এক্সের অন্যতম বড় ক্রিকেটভিত্তিক অ্যাকাউন্ট ক্রিকজনস বাংলাদেশের পক্ষে পোস্ট করেন। তিনি বলেন, বাংলাদেশের জন্য কষ্ট লাগছে।

তার সেই পোস্টে বেশিরভাগ কমেন্টকারী বাংলাদেশের পক্ষে কথা বলেছেন। অন্য জায়গাতেও বাংলাদেশের পক্ষ নেওয়া হলেও অনেকেই আবার প্রশ্ন তুলেছে টাইগারদের ম্যাচ শেষ করার সামর্থ্য নিয়েও। কারণ আর যাই হোক ২৪ বলে ২৭ রানের ম্যাচ কারও পক্ষে হারার কথা নয়। যেখানে হাতে উইকেট ছিল ৫টি।

আরেক ব্যবহারকারী প্রশ্ন করেছেন এরকম আইন এখনো থাকবে কেন? তবে যাই হোক শান্ত-হৃদয়দের পক্ষে সমালোচনা হলেও এই ম্যাচের হতাশা বাংলাদেশকে পোড়াবে অনেক দিন।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

দেখে নিন সেমির সময়সূচি

পশ্চিমাদের বিরুদ্ধে ইরানি সাফল্যের রহস্য

পরীমণির সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্কে চাকরি হারাচ্ছেন সেই সাকলায়েন

ময়মনসিংহ ও নেত্রকোনায় গ্যাস সরবরাহ বন্ধ

গোমতীর পাড়ে সৌন্দর্য বিলাচ্ছে তিতবেগুন ফুল

জামিন পেলেন পরীমণি

বাংলাদেশকে হারিয়ে সেমিতে উঠে আফগানদের ইতিহাস

চিনি চোরাচালানে অভিনব কায়দা, বিপাকে পুলিশ

দুটি রাসেলস ভাইপার পিটিয়ে মারল এলাকাবাসী

কাঠ পুড়িয়ে কৃত্রিম কয়লা তৈরি, হুমকিতে পরিবেশ

১০

ভালো নেই মাহালী জনগোষ্ঠীর বাঁশ শিল্পের কারিগররা

১১

আত্মসমর্পণ করলেন পরীমণি

১২

গ্যালারিতে বসে দলের ছন্নছাড়া ফুটবল দেখলেন নেইমার

১৩

শীর্ষ করদাতা কাউছ মিয়া মারা গেছেন

১৪

সন্ধান মিলল ছাগলকাণ্ডের সেই মতিউরের

১৫

অবশেষে কারামুক্ত জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জ, ফিরলেন নিজ দেশে

১৬

পুলিশ সদস্যদের দুর্নীতি ইস্যু এবার মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরে

১৭

একের পর এক উইকেট হারাচ্ছে বাংলাদেশ

১৮

পুকুরে ডুবে ৩ শিশুর মৃত্যু

১৯

হত্যা মামলার আসামি যুবলীগ নেতাকে কুপিয়ে জখম

২০
X