কালবেলা প্রতিবেদক
প্রকাশ : ২১ এপ্রিল ২০২৪, ০৪:২০ পিএম
অনলাইন সংস্করণ

ইরানের বিমানঘাঁটিতে হামলায় ক্ষয়ক্ষতির ছবি প্রকাশ

ইস্ফাহান বিমানঘাঁটিতে ইসরায়েলের হামলায় ক্ষয়ক্ষতির ছবি প্রকাশ। ছবি : সংগৃহীত
ইস্ফাহান বিমানঘাঁটিতে ইসরায়েলের হামলায় ক্ষয়ক্ষতির ছবি প্রকাশ। ছবি : সংগৃহীত

শুক্রবার ভোরে ইরানের মধ্যাঞ্চলীয় ইস্ফাহান শহরে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায় ইসরায়েল। ইরানের একটি বিমানঘাঁটি লক্ষ্য করে এই হামলা চালানো হয়। ইসরায়েলের চালানো হামলায় বিমানঘাঁটিতে সম্ভাব্য ক্ষয়ক্ষতির কিছু স্যাটেলাইট ইমেজ প্রকাশিত হয়েছে। রোববার (২১ এপ্রিল) সকাল পর্যন্ত সবশেষ ২৪ ঘণ্টায় ধারণ করা হয় এসব দৃশ্য।

প্রকাশিত স্যাটেলাইট ইমেজের দুটি দৃশ্য বিশ্লেষণ করেছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি। এতে দেখা গেছে, হামলায় ইস্ফাহানের ওই বিমানঘাঁটির একটি প্রতিরক্ষাব্যবস্থার আংশিক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

চলতি মাসের শুরুতে সিরিয়ার দামেস্কে অবস্থিত ইরানি কনস্যুলেটে হামলা চালায় ইসরায়েল। হামলায় ইরানের কয়েকজন শীর্ষ সেনা কর্মকর্তা নিহত হন। ওই হামলার জবাবে গত ১৩ এপ্রিল রাতে ইসরায়েলকে লক্ষ্য করে ৩০০টিরও বেশি ড্রোন ও ক্ষেপণাস্ত্র ছোড়ে ইরানের রেভল্যুশনারি গার্ড কোর (আইআরজিসি)।

পাল্টা জবাবে শুক্রবার (১৯ এপ্রিল) ভোরে ইরানের ইস্ফাহানে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায় ইসরায়েল। তবে ইরান সরকার তা অস্বীকার করেছে। ইরান বলেছে, বাহির থেকে কোনো হামলা হয়নি। ইসরায়েলের পক্ষ থেকেও আনুষ্ঠানিকভাবে এ বিষয়ে নিশ্চিত করা হয়নি।

মার্কিন এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা এবিসি নিউজকে বলেন, শুক্রবার ভোরে ইরান সীমান্তের বাইরে থেকে ইসরায়েলি জঙ্গি বিমান তিনটি ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করে।

নাম প্রকাশ না করে ইরানের কর্মকর্তাদের বরাতে নিউইয়র্ক টাইমসের খবরে বলা হয়, বিমানঘাঁটিতে ওই হামলা ছাড়াও ইস্ফাহানের প্রায় ৫০০ মাইল উত্তরে তাবরিজ এলাকা লক্ষ্য করে হামলা চালিয়েছে ইসরায়েল। তবে এ হামলা নস্যাৎ করা হয়েছে।

স্থানীয় সময় শুক্রবার ভোর ৪টার দিকে ইস্ফাহানে বিকট শব্দে একাধিক বিস্ফোরণ ঘটে। এ সময় আকাশে দেখা দেয় আলোর ঝলকানি। এ ঘটনার পর রাজধানী তেহরানসহ ইরানের পশ্চিমাঞ্চলের আকাশসীমা সাময়িক সময়ের জন্য বন্ধ করে দেওয়া হয়। কয়েক ঘণ্টা পর আবার বিমান চলাচল স্বাভাবিক হয়।

এদিকে তেহরান ও তেল আবিব চলমান উত্তেজনার মধ্যেই ইসরায়েলকে হেয় করে মন্তব্য করেছেন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী হোসেন আমির আবদুল্লাহিয়ান। এনবিসি নিউজের এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, শুক্রবারের হামলা ইরানের কাছে কোনো ঘটনাই নয়। ইসরায়েল যে অস্ত্র ব্যবহার করে তা ইরানের শিশুদের কাছে খেলনার মতো।

মূলত ওই হামলায় যে ধরনের ড্রোন ব্যবহার করা হয়েছে তা নিয়েই উপহাস করেছেন ইরানি পররাষ্ট্রমন্ত্রী। তিনি বলেন, ইসরায়েলের বিরুদ্ধে তাৎক্ষণিক প্রতিশোধ নেওয়ার কোনো পরিকল্পনা তেহরানের নেই। তবে তাদের পারমাণবিক স্থাপনা ক্ষতির মুখে পড়লে তার চরম মূল্য দিতে হবে তেল আবিবকে।

ইরানি পররাষ্ট্রমন্ত্রী আরও জানান, গত সপ্তাহে ইসরায়েলকে লক্ষ্য করে চালানো হামলা ছিল কেবল একটা সতর্কতা মাত্র। ইরান চাইলে তাদের আল হাইফা, তেল আবিবের মতো বড় শহরগুলোর পাশাপাশি বাণিজ্যিক বন্দরগুলো টার্গেট করতে পারত। কিন্তু বেসামরিক নাগরিকদের সুরক্ষার কথা ভেবে তেমনটা করেনি ইরান।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

খুলনায় বেড়িবাঁধ ভেঙে তলিয়ে গেছে ২৫ গ্রাম

ভুয়া বিজ্ঞপ্তি প্রচার করায় জিডি করল জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়

হত্যা মামলায় বাবা-ছেলেসহ ১০ জনের যাবজ্জীবন

সিকৃবি শিক্ষকদের কর্মবিরতি ও অবস্থান কর্মসূচি

বিয়ের ১২ দিন পর স্ত্রী হয়ে গেলেন পুরুষ

ঘূর্ণিঝড় রিমাল / শিক্ষার্থীদের দাবির মুখে খুবিতে পরীক্ষা স্থগিত

একনেকে ১৪ হাজার ৩৩৭ কোটি টাকার প্রকল্প অনুমোদন

রাঙামাটিতে ধর্ষণের দায়ে যুবকের যাবজ্জীবন

ঘূর্ণিঝড় রিমাল / ভোলায় নিহত ৩

আকর্ষণীয় বেতনে অক্সফামে চাকরির সুযোগ

১০

অপরাধী হলে শাস্তি পেতেই হবে, সাবেক সেনাপ্রধান-আইজিপির বিষয়ে কাদের

১১

সাত ঘণ্টা বন্ধের পর সৈয়দপুরে বিমান চলাচল স্বাভাবিক

১২

ঝিনাইদহে ধর্ষণ মামলায় ইউপি চেয়ারম্যানের যাবজ্জীবন

১৩

ঝড়ের মধ্যে চাঁদপুরে বিদ্যুতের ২৩ মিটার চুরি

১৪

ঘূর্ণিঝড়ের ক্ষয়ক্ষতি পরিদর্শনে পটুয়াখালী যাবেন প্রধানমন্ত্রী

১৫

ঘূর্ণিঝড় রিমাল / বরগুনায় পানিবন্দি ১০ হাজার পরিবার

১৬

আরও তিন উপজেলার ভোট স্থগিত

১৭

পরীক্ষা দিতে গিয়ে নিখোঁজ, খালে মিলল মরদেহ

১৮

সরকারি চাকরিতে ৩ লাখ ৭০ হাজার পদ ফাঁকা : জনপ্রশাসনমন্ত্রী

১৯

সর্বজনীন পেনশন স্কিম বাতিলের দাবি বুটেক্স শিক্ষকদের

২০
X