বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪, ৬ আষাঢ় ১৪৩১
কালবেলা প্রতিবেদক
প্রকাশ : ২৭ মে ২০২৪, ০৩:২৪ এএম
আপডেট : ২৭ মে ২০২৪, ০৮:০৭ এএম
প্রিন্ট সংস্করণ
সম্পাদকীয়

খোঁড়াখুঁড়ির নগরী

খোঁড়াখুঁড়ির নগরী

বর্ষা মৌসুম শুরু হবে কয়েক দিন বাদেই। এই মুহূর্তে রাজধানীর দুই সিটি করপোরেশনের দেড় শতাধিক রাস্তায় চলছে খোঁড়াখুঁড়ি। রাস্তা সংস্কারসহ চলছে বিভিন্ন সেবামূলক সংস্থার এসব খোঁড়াখুঁড়ির কাজ। বিশ্বের সবচেয়ে ঘনবসতি ও অন্যতম শীর্ষ জনবসতির এ শহরে এসব কাজের ক্ষেত্রে চিত্রটি হওয়া উচিত ছিল সুপরিকল্পিত, সমন্বিত এবং যতটা সম্ভব জনভোগান্তিমুক্ত, কিন্তু বাস্তবতা তার উল্টো। অর্থাৎ রাস্তায় খোঁড়াখুঁড়ি এখন সারা বছরের নৈমিত্তিক দৃশ্য। এ কারণে স্বভাবতই প্রত্যহ অবর্ণনীয় ভোগান্তির শিকার হতে হচ্ছে নগরবাসীর; একই সঙ্গে ঢাকা দিন দিন হয়ে উঠছে অচল-স্থবির। বছরজুড়ে এসব দৃশ্য দেখে মনে হয়, ঢাকা যেন একটি খোঁড়াখুঁড়ির নগরী! এটি অত্যন্ত দুঃখজনক, একই সঙ্গে হতাশার।

রোববার দৈনিক কালবেলায় প্রকাশিত ‘খুঁড়তে খুঁড়তে ঢাকা অচল’ শীর্ষক প্রধান শিরোনামে এ বিষয়ে বিস্তারিত চিত্র তুলে ধরা হয়েছে। প্রতিবেদন অনুসারে, রাজধানীতে সড়ক খনন ও পুনর্নির্মাণ সমন্বয় করতে দুই সিটির দুটি ওয়ানস্টপ সমন্বয় সেল সেবা সংস্থাগুলো উন্নয়নকাজ, দুই সিটির নিজস্ব সড়ক খনন ও সংস্কারের শতাধিক কাজের যে অনুমোদন দিয়েছে, তার মেয়াদ শুষ্ক মৌসুম ধরে অক্টোবর থেকে এপ্রিল পর্যন্ত হলেও বেশিরভাগ কাজই নির্দিষ্ট সময়ে সম্পন্ন হওয়ার সম্ভাবনা ক্ষীণ। ফলে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে যানজট ও সীমাহীন ভোগান্তি। কাজ শেষ করার সময় বেঁধে দেওয়া হলেও জরিমানা দিয়েই পার পাচ্ছেন ঠিকাদাররা। আবার কোনো কোনো সড়কে পিচ ঢালাইয়ের পরের মাসেই আবার খোঁড়াখুঁড়ি করছে অন্য কোনো সংস্থা—এমন চিত্রও কম নেই। নগর পরিকল্পনাবিদরা বলছেন, ভরা বর্ষায় সড়কগুলো হয়ে উঠবে গলার কাঁটা। যার দায় ঢাকার দুই নগর কর্তৃপক্ষের। রাজধানীতে সড়ক খনন ও পুনর্নির্মাণ সমন্বয় করতে দুই সিটির যে দুটি ওয়ানস্টপ সমন্বয় সেল রয়েছে, তাদের সমন্বয়হীনতা স্পষ্ট। পাশাপাশি সেবাসংস্থাসহ সিটি করপোরেশনের সংস্কারের কাজে সময় বেঁধে দেওয়া দুটি ওয়ানস্টপ সেলের কাছে যে শুধুই খাতা-কলমের বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে এবং তারা যে শুধু অনুমোদন দিয়েই খালাস—এমন প্রবণতাও লক্ষণীয়। অথচ এ বিষয়ে ঢাকা মহানগরীর সড়ক খনন নীতি কার্যকর করার ক্ষেত্রে দুই সিটির ওয়ানস্টপ সেলের কী ভূমিকা হবে, তা স্পষ্ট উল্লেখ রয়েছে নীতিটিতে। আমরা মনে করি, কেন রাস্তা খোঁড়াখুঁড়িতে নীতিমালা মেনে চলা হয় না, এ প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার বাধ্যবাধকতা রয়েছে সংশ্লিষ্ট সব মন্ত্রণালয় ও সেবাদাতাদেরও। এ ছাড়া নিয়ন্ত্রক, সেবা সংস্থা ও ঠিকাদারের এক অন্যের বিরুদ্ধে রয়েছে পাল্টাপাল্টি অভিযোগ। সংস্থাগুলোর অনেকের অভিযোগ, ওয়ান স্টপ সেল দেরি করে কাজের অনুমোদন করে। ফলে স্বল্প সময়ের মধ্যে তাদের কাজ শেষ করতে পারেন না। আবার ওয়ান স্টপ সেলের অভিযোগ, সংস্থাগুলোর অনেকেই আবেদন জানান শেষ মুহূর্তে। এ ছাড়া ঠিকাদাররা বেশিরভাগ ক্ষেত্রে রাজনৈতিক মহলের আশীর্বাদপুষ্ট হওয়ায় তাদের নিয়ম তোয়াক্কা না করার প্রবণতা লক্ষণীয়। ভিন্ন ভিন্ন সময়ে একাধিক সেবা সংস্থার উন্নয়নের কাজে রাস্তা খোঁড়াখুঁড়ির ঘটনাও কম নয়। সুতরাং, রাস্তা বছরজুড়ে খোঁড়াখুঁড়ির ক্ষেত্রে সার্বিকভাবে যে সমন্বয়হীনতা আর দায়িত্বহীনতাই বেশি দায়ী, এটা নিঃসন্দেহে বলা যায়।

আমরা মনে করি, যে কোনো প্রকারে অপরিকল্পিত খোঁড়াখুঁড়ি বন্ধ করা এখন সময়ের দাবি। এতে নগরবাসীর বিড়ম্বনা, ভোগান্তি নিরসনের পাশাপাশি যানজটের কারণে প্রতি বছর যে পরিমাণ অর্থনৈতিক ও পরিবেশের ক্ষতিসাধিত হয়, তা কমিয়ে আনা সম্ভব। এটি করতে হলে, বিধি অমান্যকারী ঠিকাদারের বিরুদ্ধে শুধু জরিমানা নয়, কঠোর শাস্তির ব্যবস্থা নেওয়ার পাশাপাশি সিটি করপোরেশন ও তাদের ওয়ান স্টপ সেলকে জবাবদিহির আওতায় আনা জরুরি। সড়ক খনন নীতিমালা বাস্তবায়নে ওয়ান স্টপ সেলসহ সংশ্লিষ্টদের কঠোর ভূমিকার বিকল্প নেই।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন
  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

মেঘনায় গোসলে নেমে স্ত্রীর সামনে তলিয়ে গেলেন স্বামী

ইসরায়েলের বিরুদ্ধে ‘বয়কট যুদ্ধ’ কি বাজার নিয়ন্ত্রণে সফল?

লেবাননের যোদ্ধাদের ভিডিওতে ইসরায়েলের গোপন স্থাপনা ফাঁস

৮ বছর আত্মগোপনে থাকার পর যুদ্ধাপরাধী রুহুল গ্রেপ্তার

ব্যর্থ টপ অর্ডারের পাশে টাইগারদের প্রধান কোচ

কুমিল্লায় ফুটে উঠেছে বর্ষার মোহনীয় রূপ

রাজধানীতে মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেপ্তার ১০

আসামে বন্যা / দেড় লাখ মানুষ পানিবন্দি, ভূমিধস আতঙ্ক

বৃষ্টি নিয়ে আবহাওয়া অফিসের নতুন বার্তা

নতুন ‘বুট’ দিয়ে শেষটা রাঙাতে তৈরি মেসি

১০

যাত্রাবাড়ীতে স্বামী-স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা

১১

সোনাই নদীর বাঁধ ভেঙে বন্যাকবলিত পুরো এলাকা

১২

বিনা দোষে ৪৩ বছর জেল খাটলেন নারী

১৩

কিমের দেশে পুতিন : কে কী উপহার পেলেন

১৪

এবার সাইপ্রাসে হামলার হুমকি

১৫

দিনটি কেমন কাটবে, জেনে নিন রাশিফলে

১৬

সুপার এইটে ক্যারিবীয়দের বিপক্ষে ইংল্যান্ডের দাপুটে জয়

১৭

বগুড়ায় পানিতে ডুবে প্রাণ গেল শিশুর

১৮

সৌদিতে হজে গিয়ে মৃত্যুর সংখ্যা ৯০০ ছাড়াল

১৯

আফগানদের বিপক্ষে ভারতীয় দলে বদলের ইঙ্গিত

২০
X