শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ৩০ চৈত্র ১৪৩০
ক্রীড়া প্রতিবেদক
প্রকাশ : ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০৮:৫৭ পিএম
আপডেট : ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০৯:০৩ পিএম
অনলাইন সংস্করণ

হকিতে মেরিনার্স-আবাহনীর সহজ জয়

জয়ের পর মেরিনার্সের খেলোয়াড়রা। ছবি : কালবেলা
জয়ের পর মেরিনার্সের খেলোয়াড়রা। ছবি : কালবেলা

মৌসুমের প্রথম বড় ম্যাচের উত্তাপে কৌতূহল বাড়িয়েছে মোহামেডান তিন বিদেশি উড়িয়ে আনায়। উত্তাপ-কৌতূহলের ছিটেফোঁটাও টার্ফের লড়াইয়ে খুঁজে পাওয়া গেল না। মোহামেডানকে ৫-১ গোলে উড়িয়ে দিল মেরিনার ইয়াংস ক্লাব। আরেক ম্যাচে ঊষা ক্রীড়াচক্রকে উড়িয়ে দেওয়া আবাহনী জিতল ৬-২ গোলে।

মোহামেডানের হার ও আবাহনীর জয়ে দুই দলকে মুখোমুখি দাড় করাচ্ছে। ক্লাব কাপের সেমিফাইনালে মুখোমুখি হচ্ছে আবাহনী-মোহামেডান। আরেক সেমিফাইনালে মেরিনার্সের প্রতিপক্ষ ঊষা ক্রীড়াচক্র। দুটি সেমিফাইনাল অনুষ্ঠিত হবে আগামীকাল।

অস্ট্রেলিয়া, নেদারল্যান্ডস ও নিউজিল্যান্ডের তিন খেলোয়াড় নিয়ে ম্যাচ শুরু করেছিল মোহামেডান। অন্যদিকে মেরিনার্স খেলেছে তিন ভারতীয় খেলোয়াড় নিয়ে। ম্যাচের শুরু থেকে পরিকল্পিত হকি খেলে মেরিনার্স অষ্টম মিনিটে লিড নিয়েছিল। ভারতীয় রিক্রুট প্রদীপ মোরের ফিল্ড গোলে লিড নেওয়ার পর সমতায় ফিরতে খুব বেশি সময় নেয়নি মোহামেডান। নিউজিল্যান্ডের চার্ল উলরিচের পেনাল্টি কর্নার গোলে স্কোরলাইন ১-১ করে ঐতিহ্যবাহী ক্লাবটি। উত্তেজনার প্রতিশ্রুতি দেওয়া ম্যাচ অবশ্য মেরিনার্সের দিকে ঝুঁকতে সময় নেয়নি। স্কোরলাইন ১-১ হওয়ার পরের মিনিটে মঈনুল ইসলাম কৌশিকের ফিল্ড গোলে ফের এগিয়ে যায় বর্তমান চ্যাম্পিয়ন মেরিনার্স।

ম্যাচের ৩১ মিনিটে মিলন হোসেনের ফিল্ড গোলে ব্যবধান বড় করে মেরিনার্স। ৩৭ মিনিটে সোহানুর রহমান সবুজের পেনাল্টি কর্নার গোলে স্কোরলাইন ৪-১ হয়। শেষ কোয়ার্টারে মঈনুল ইসলাম কৌশিক দলের শেষ গোল করেন (৫-১)।

খেলোয়াড়দের স্বাধীনতা দেওয়ায় আয়েশি এ জয় এসেছে—দাবি মেরিনার্স কোচ মামুনুর রশীদের। সাবেক এ তারকা কালবেলাকে বলছিলেন, ‘এ ম্যাচের আগেই সেমিফাইনাল নিশ্চিত ছিল। এ কারণে আমি ছেলেদের বলেছি, তোমরা নিজেদের মতো করে ম্যাচটা উপভোগ করো। তারা অনেক রিলাক্স হকি খেলেছে। এটাই ম্যাচে দুই দলের মাঝে ব্যবধান গড়ে দিয়েছে।’

বাংলাদেশ পুলিশকে হারিয়ে মৌসুম সূচনার আসরে পথচলা শুরু হয়েছিল মেরিনার্স, মোহামেডান দুই দলের। ২০০৯ সালে সর্বশেষ ক্লাব কাপ শিরোপা জয়ী মোহামেডান পুলিশকে হারিয়েছে ৫-১ গোলে। মেরিনার্সের জয় ছিল ২-০ ব্যবধানে। একটি করে জয়েই সেমিফাইনাল নিশ্চিত হয়েছিল দুই দলের।

গ্রুপের ভাগ্য লিখে দেওয়া ম্যাচে পরিকল্পনার দিকেও এগিয়ে ছিল মেরিনার্স। সেটা দলটির খেলাতেও স্পষ্ট হয়েছে। এ সম্পর্কে কোচ মামুনুর রশীদ বলেছেন, ‘শুটিং-সার্কেলের দুই দিকে প্রচুর ফাঁকা জায়গা ছিল। সেগুলো ব্যবহারের পরিকল্পনা ছিল আমাদের। প্রদীপ ও দীপক ফ্লিক করে সেখানে বারবার বল ফেলেছিল। সে বলগুলো কাজেও লাগিয়েছি আমরা।’

দ্বিতীয় ম্যাচের ৩১ মিনিটে রাকিবুল হাসান রকির ফিল্ড গোলে এগিয়ে যায় আবাহনী। ৩৫ মিনিটে আব্রাহাম বেলিমঙ্গারের ফিল্ড গোলে ব্যবধান দ্বিগুণ হয় (২-০)। ৩৭ মিনিটে যুবরাজ বলমিকির ফিল্ড গোলে ব্যবধান ৩-০ করে আবাহনী। ৪০ মিনিটে মাহবুব হোসেনের ফিল্ড গোলে ব্যবধান ৩-১ করে ঊষা। ৪৩ মিনিটে পেনাল্টি কর্ণার গোলে আবাহনীকে আরও এগিয়ে দেন আশরাফুল ইসলাম (৪-১)। ৪৮ মিনিটে মাহবুব হোসেনের পেনাল্টি স্ট্রোক থেকে করা গোলে ফের ব্যবধান কমায় ঊষা (৪-২)। ৫১ মিনিটে আবাহনী আব্রাহাম দলের পঞ্চম এবং নিজের দ্বিতীয় করেন (৫-২)। ৫৫ মিনিটে পিসি থেকে ম্যাচের শেষ গোলটি করেন আবাহনীর ডিফেন্ডার ফরহাদ আহমেদ শিতুল (৬-২)।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

আড্ডা দিচ্ছিলেন ছাত্রলীগ কর্মীরা, অতর্কিত হামলায় আহত ৪

চৈত্রসংক্রান্তি আজ

১৩ এপ্রিল : নামাজের সময়সূচি

দুদিন বন্ধের পর আজ থেকে মেট্রোরেল চালু 

মার্কিন ঘাঁটিতেও হামলার হুমকি ইরানের

বিমান থেকে সংকেত দেখেই দ্বীপ থেকে তিন নাবিককে উদ্ধার

বাস ও মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে দুই মাদ্রাসাছাত্র নিহত

সৌদি আরবে গাড়ির নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে প্রাণ গেল বাংলাদেশির

এবারই প্রথম স্বস্তিতে মানুষ ট্রেন ভ্রমণ করছেন : রেলমন্ত্রী

খুলনায় ইজিবাইকের ধাক্কায় প্রাণ গেল শিশুর

১০

দিনদুপুরে তরুণীকে নির্যাতন, ভিডিও ভাইরাল

১১

ঈদে পর্যটকে মুখরিত মাধবকুণ্ড জলপ্রপাত

১২

‘বাঙালিত্বের সঙ্গে ধর্মের কোনো সংঘর্ষ নেই’

১৩

খুলনায় দুর্বৃত্তদের গুলিতে আ.লীগের তিন নেতা গুরুতর আহত

১৪

সিদ্ধান্ত থেকে সরে দাঁড়াল বান্দরবান প্রশাসন

১৫

ইরান-ইসরায়েল উত্তেজনা চরমে, মার্কিন রণতরীর অবস্থান পরিবর্তন

১৬

দুঃসংবাদ দিল আবহাওয়া অফিস

১৭

মসজিদের টাকার হিসাবকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষ, আহত ১২

১৮

স্ত্রী-সন্তানকে মাংস কিনে খাওয়াতে না পারায় চিরকুট লিখে আত্মহত্যা

১৯

মারাঠা বর্গীদের মতো দেশে লুটপাট চলছে : বিএসপিপি 

২০
*/ ?>
X