মামুনুর রশীদ
প্রকাশ : ০৮ জুলাই ২০২৪, ০৯:৪৯ পিএম
অনলাইন সংস্করণ

ছাত্রসমাজ প্রধানমন্ত্রীর কাছে কোটার যৌক্তিক সমাধান চায়

ফাইল ছবি
ফাইল ছবি

‘কোটা’-এর যৌক্তিক সমাধানের জন্য অবশ্যই দেশরত্ন শেখ হাসিনার উপর আমাদের বিশ্বাস ও আস্থা রাখতে হবে। ‘কোটা’ ব্যবস্থা নিরীক্ষণ এর সময়ে লাল ফিতার দৌরাত্ম্যের প্রতিও সঠিকভাবে দৃষ্টি রাখতে হবে। এই দৌরাত্ম্য সরকারের মান নিয়ন্ত্রণ করতে যেমন সক্ষম, তেমনিভাবে সব কিছুর ওপর পূর্ণ কর্তৃত্ব বজায় রাখতেও তৎপর। কোটা সংস্কার শিক্ষার্থীদের অধিকার। সেটা আদায়কারীদের অসংলগ্ন কথা বলে দয়া করে আমাদের জননেত্রীকে বিব্রত করবেন না। আপনারা যারা দায়িত্বশীল পর্যায় রয়েছেন তাদের প্রতি সবাই দায়িত্বশীল আচরণ ও সংযত বিবৃতি আশা করছি।

যারা জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগকে কোটার ‘বিরোধী’ ভেবে বিভিন্নভাবে গালমন্দ করছেন বা বাজে মন্তব্য করছেন তাদের প্রতি অনুরোধ, আগে জাবি ছাত্রলীগ সম্পর্কে ভালোভাবে জানুন। তারপর আপনার বক্তব্য স্পষ্ট করুন। যারা আন্দোলনের সময় আমাদের দেখেছেন তাদের অনুভূতি সম্পূর্ণ ভিন্ন বলে আমি জানি। সুতরাং আপনার মন্তব্য প্রকাশ করার আগে চিন্তা করুন আপনি কী ঠিক করছেন?

মহান মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে আমরা একটি পরিচয় পেয়েছি, একটি ভূখণ্ড পেয়েছি। তাদের শ্রম, রক্ত আর মেধা দুঃসময়ে কাজে লাগিয়ে জাতির পিতা যে বাংলাদেশ আমাদের জন্য রেখে গেছেন সেই অবদান ভোলার নয়। যারা মুক্তিযোদ্ধা কোটার জন্য এসব মহান মানুষদের গালি দিচ্ছেন সেটা মোটেও ঠিক নয়। কোটার জায়গায় কোটা রাখুন, মুক্তিযোদ্ধার জায়গায় মুক্তিযোদ্ধাদের রাখুন। কোটা বনাম মেধা এখন দেশের অচলায়তন সৃষ্টি করছে।

মহাকালের ইতিহাসে ছাত্র আন্দোলন খুবই গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখেছে। ছাত্র আন্দোলনের ইতিহাস আমরা জানি। একটি দেশের আমূল পরিবর্তনের জন্য ছাত্ররাই যথেষ্ট বলে আমরা সবাই মনে করি। দেশ বিভাগ থেকে ভাষা আন্দোলন, শিক্ষা আন্দোলন, ছয় দফা আন্দোলন, স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলন সবটাই এখন ইতিহাস। আজ একাবিংশ শতাব্দীতে এসে ছাত্র আন্দোলন একটি অধিকারকে কেন্দ্র করে গড়ে উঠেছে। মেধার রাজত্ব আমাদের চালু রাখতে হবে। না হলে রাষ্ট্রযন্ত্র পরিচালনায় প্রতিটি পদক্ষেপে আমাদের বাধার সম্মুখীন হতে হবে।

কোটা প্রথা পৃথিবীর বেশ কয়েকটি দেশে প্রচলিত। কোটার চেয়ে সেসব দেশে মেধার মূল্যায়ন বেশি করা হয়েছে। কোটার বিপক্ষে আমরা আন্দোলন করছি বা সমর্থন জোগাচ্ছি অথবা নৈতিকভাবে সমর্থন করছি তাদের প্রতি সান্ত্বনা দেওয়ার ভাষা আমার নেই। অনেক বড় বড় গুণীজন কোটা সংস্কার নিয়ে লিখছে। লেখার সুবাদে বন্ধু, অগ্রজ, অনুজদের অনুরোধ কোটা সংস্কার নিয়ে লিখতে হচ্ছে। এটি একটি স্পর্শকাতর বিষয়। বাংলাদেশ সরকার এটি মানলে তারুণ্যের জয় হবে।

২৬ লাখ শিক্ষিত তরুণ বেকার (বিবিএস এর তথ্য)। এরা সবাই আবার ভোটার। ২০০৮ সালের তারুণ্যের জোয়ারে আমাদের দেশরত্ন বঙ্গবন্ধুকন্যা ক্ষমতায় অধিষ্ঠিত হয়েছিল। তিন টার্মে দেশের অগ্রগতি শতভাগ এগিয়ে যাচ্ছে। তরুণ ভোটাররা শেখ হাসিনাতেই আস্থা রেখে চলেছে। এরা ইতিহাস জানে। সোনার বাংলা বিনির্মাণে, বাংলার মেহনতি মানুষের জন্য শেখ হাসিনার কোনো বিকল্প নেই। পৃথিবীর কাছে বাংলাদেশ শুধু একটি নাম নয়, একটি জাতির চেতনা, জাতীয়তাবোধ। সবটাই তুলে ধরেছেন বঙ্গবন্ধুকন্যা।

চাকরির নিয়োগের ‘কোটা’-এর যৌক্তিক সমাধান এর জন্য অবশ্যই দেশরত্ন শেখ হাসিনার ওপর আমাদের বিশ্বাস, আস্থা রাখতে হবে। প্রধানমন্ত্রীর প্রতি আস্থা রাখুন ন্যায্য অধিকার অবশ্যই আমরা ফিরে পাব। মেধাবীদের জয় হবেই। কেননা জননেত্রী আমাদের অধিকারের ভাষা বোঝেন। তার জন্য সময়, শ্রম আর মেধাকে হেলায় আর বিপথগামীদের আয়ত্বে যেন না চলে যায় সেদিকে আমাদের সচেতন থাকতে হবে। অধিকার অর্জিত হবে, আর মেধার জয় হবে এটাই স্বাভাবিক।

মাননীয় নেত্রী আপনিই পেরেছেন দেশকে স্বয়ংসম্পূর্ণ করতে। দেশকে উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় সমুন্নত রাখতে। আপনি প্রমাণ করেছেন আপনি নিজের চিন্তা করেন না। আপনি জনগণের। ১৬ কোটি বাঙালির মমতাময়ী মা। ছাত্রদের অধিকার ফিরিয়ে দেয়ার ক্ষমতা শুধু আপনার হাতেই। আপনি জনেন, মেধাবীরাই পারে বাংলাদেশকে সুউচ্চে নিয়ে যেতে। মেধার জয় হোক, এগিয়ে যাক বাংলাদেশ আপনার হাত ধরেই।

মামুনুর রশীদ : সহসভাপতি, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়

[ নিবন্ধ, সাক্ষাৎকার, প্রতিক্রিয়া প্রভৃতিতে প্রকাশিত মতামত লেখকের নিজস্ব। দৈনিক কালবেলার সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে নিবন্ধ ও সাক্ষাৎকারে প্রকাশিত মত সামঞ্জস্যপূর্ণ নাও হতে পারে। প্রকাশিত লেখাটির ব্যাখ্যা বা বিশ্লেষণ, তথ্য-উপাত্ত, রাজনৈতিক, আইনগতসহ যাবতীয় বিষয়ের দায়ভার লেখকের, দৈনিক কালবেলা কর্তৃপক্ষের নয়। ]
কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

বগুড়ায় প্রাইভেটকার-ট্রাক মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ২

মাদকের ২ হাজার টাকার জন্য শিশু অপহরণ, গ্রেপ্তার ৪

কর্ণফুলী পেপার মিলসে আগুন

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ফুটবল খেলা নিয়ে দুপক্ষের সংঘর্ষ

মেসির সাথে আলোচিত সেই ছবি নিয়ে যা বললেন ইয়ামাল

উয়েফার নতুন ক্লাব র‌্যাঙ্কিং প্রকাশ, শীর্ষে কোন ক্লাব?

সকাল ৯টার মধ্যে ঝড় শুরু হতে পারে রাজধানীসহ যেসব অঞ্চলে

কোটা ইস্যুতে শাহবাগে এবার পাল্টা কর্মসূচি

নেস্তোর লরেঞ্জো, আর্জেন্টাইনদের প্রিয় শত্রু

রাশিয়ায় যাত্রীবাহী বিমান বিধ্বস্ত, সব আরোহী নিহত

১০

হঠাৎ চাকরি ছাড়লেন ৬ বিসিএস ক্যাডার

১১

চ্যানেল২৪’র অনুসন্ধান / ৪৬তম বিসিএসের প্রিলির প্রশ্নও ফাঁস হয়েছিল

১২

গর্ভবতী ও নবজাতক মায়েদের জন্য টগুমগু

১৩

এবার জিআই পণ্যের স্বীকৃতি পেল গোপালগঞ্জের গয়না

১৪

কোটা সংস্কার আন্দোলন / রাজশাহীতে ৪ ঘণ্টা পর সারাদেশের রেল যোগাযোগ সচল

১৫

ফুটবল টুর্নামেন্টে সংঘর্ষ, আহত ২

১৬

কোটা আন্দোলনকারীদের ওপর হামলার প্রতিবাদে জাবিতে মশাল মিছিল

১৭

মানিকগঞ্জে বাসচাপায় পথচারী নিহত

১৮

টেঁটার ফলায় বিদ্ধ রকিবের আইনজীবী হওয়ার স্বপ্ন

১৯

রাজশাহীতে ক্লুলেস হত্যা মামলায় পলাতক আসামি গ্রেপ্তার

২০
X