ক্রীড়া প্রতিবেদক
প্রকাশ : ০৯ ডিসেম্বর ২০২৩, ০৩:১৮ পিএম
আপডেট : ০৯ ডিসেম্বর ২০২৩, ০৪:৩৬ পিএম
অনলাইন সংস্করণ

সিরিজ জয়ের স্বপ্নের সমাপ্তি বাংলাদেশের

স্যান্টনারের অপরাজিত ৩৫ রানে জয়ের বন্দরে পৌঁছায় কিউইরা। ছবি : সংগৃহীত

বাংলাদেশ দলের সামনে হাতছানি ছিল প্রথমবারের মতো নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে দেশের মাটিতে টেস্ট সিরিজ জয়ের। সেই টার্গেটে অনেক কাছাকাছি পৌঁছেও গিয়েছিল নাজমুল হাসান শান্তর দল। তবে শেষ পর্যন্ত আর সেই জয়ের সুবাস পাওয়া হলো না টাইগারদের। মিরপুরে শেরেবাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে মিচেল স্যান্টনার ও গ্লেন ফিলিপসের অপরাজিত ৭০ রানের জুঁটিতে চার উইকেটে জয় পেয়েছে নিউজিল্যান্ড। এই জয়ে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ সমতায় শেষ হলো।

শনিবার (৯ ডিসেম্বর) মিরপুরে বাংলাদেশ-নিউজিল্যান্ডের মধ্যকার দ্বিতীয় ও শেষ টেস্টের চতুর্থ দিনে ব্যাটারদের কাণ্ডজ্ঞানহীন ব্যাটিংয়ে দ্বিতীয় ইনিংসে মাত্র ১৪৪ রানে থামে বাংলাদেশের ইনিংস। কিউইদের জয়ের লক্ষ্য দাঁড়ায় ১৩৭ রানে। রান হিসেবে মামুলি লক্ষ্য হলেও মিরপুরের স্পিন সহায়ক পিচে সেটিকেই কঠিন বানিয়ে দেয় তাইজুল-মিরাজ।

নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারিয়ে চাপেও পড়ে কিউই ব্যাটাররা। তবে সপ্তম উইকেট জুটিতে গ্লেন ফিলিপস আর মিচেল স্যান্টনারের ৭০ রানের জুটিতে ৪ উইকেটের জয় তুলে নেয় কিউইরা।

কিন্তু পরে ওয়ানডে ঘরানার ব্যাটিংয়ে দলকে জয়ের বন্দরে নিয়ে যান গ্লেন ফিলিপস ও মিচেল স্যান্টনার।

এর আগে সকালে এজাজ প্যাটেলের ঘূর্ণিতে সকালে মাত্র ১৪৪ রানে থামে বাংলাদেশের ইনিংস। মামুলি এই লক্ষ্য তাড়ায় কিউইদের আটকাতে দ্বিতীয় ইনিংসের শুরুতেই বাংলাদেশের দরকার ছিল দারুণ কিছুর। সেটাই এনে দেন শরিফুল ইসলাম। প্রথম ওভার থেকেই কনওয়েকে ভুগিয়েছিলেন নিজের দুর্দান্ত ইনসুইং দিয়ে। লাঞ্চের পরপরই সেই ইনসুইং দিয়েই কনওয়ের উইকেট তুলে নেন শরিফুল।

কেইন উইলিয়ামসনকে নিয়ে অস্বস্তিতে ছিল টাইগাররা। তবে তাইজুলের ঘূর্ণি স্বস্তি এনে দিয়েছে বাংলাদেশকে। বাঁহাতি এই স্পিনারকে সামনে এসে পুল করতে গিয়ে বলটি মিস করেন উইলিয়ামসন। মুহূর্তেই বলটি হাতে তালুবন্দি করে স্টাম্প ভেঙে দেন উইকেটরক্ষক নুুরুল হাসান সোহান। দুর্দান্ত স্টাম্পিংয়ের শিকার হয়ে ২৪ বলে ১১ রান করে ফেরত যান উইলিয়ামসন।

এরপর ব্যাট করতে আসা নিকোলসকেও পিচে থাকতে দেননি মিরাজ। এলবিডব্লিউ করে ৩ রান করা কিউই ব্যাটারকে ফেরান এই ডানহাতি স্পিনার। ল্যাথামকে নাজমুল হোসেন শান্তর ক্যাচ বানান মিরাজ। সবশেষ তাইজুলের বলে উইকেটরক্ষকের হাতে ধরা পড়েন ব্লান্ডেল।

নিউজিল্যান্ড শিবিরে অবশ্য সবচেয়ে বড় ধাক্কাটা দেন তাইজুল। ফর্মে থাকা ড্যারিল মিচেলকে শান্তর ক্যাচে পরিণত করেছেন তিনি। শুরুতে আম্পায়ার নাকচ করলেও রিভিউতে ঠিকই কাঙ্ক্ষিত উইকেট পেয়ে যায় টাইগাররা।

তবে পরে বুদ্ধিদীপ্ত ব্যাটিংয়ে আর কোনো উইকেট না হারিয়েই জয় তুলে নেয় গ্লেন ফিলিপস ও মিচেল স্যান্টনার। এই জয়ে দুই ম্যাচের সিরিজ ১-১ সমতায় শেষ হলো।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

ঘুষ-দুর্নীতির আখড়া জাজিরার বড়কান্দি ইউনিয়ন ভূমি অফিস

মীন রাশিতে কাজে সফল হওয়ার দিন আজ

২৭ ফেব্রুয়ারি : নামাজের সময়সূচি

মঙ্গলবার রাজধানীর যেসব এলাকায় যাবেন না

কী ঘটেছিল ইতিহাসের এই দিনে

প্যারিসে ভাষা দিবস উপলক্ষে পঞ্চ কবির গানের সন্ধ্যা

বাবাকে কুপিয়ে জখম, ছেলে গ্রেপ্তার

আধিপত্য বিস্তারে দুই গ্রুপের ককটেল বিস্ফোরণ, আহত ৩

পথ হারানো ৩১ দর্শনার্থীকে উদ্ধার করল পুলিশ

শিক্ষা সফরে মদপান, দুই শিক্ষক সাময়িক বরখাস্ত

১০

মিয়ানমারে সরকার গঠন করতে যাচ্ছে বিদ্রোহীরা!

১১

রাতের ঢাকায় নতুন মাদক

১২

বাংলাদেশ অলিম্পিক এসোসিয়েশন এর কার্যনির্বাহী কমিটির সভা অনুষ্ঠিত

১৩

রংপুরকে উড়িয়ে ফাইনালে লিটনের কুমিল্লা

১৪

যুগান্তরের অবদান চির স্মরণীয় হয়ে থাকবে

১৫

ভিকারুননিসার শিক্ষক মুরাদ গ্রেপ্তার

১৬

যৌন হয়রানির অভিযোগে ভিকারুননিসা শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা

১৭

করোনায় আক্রান্ত ডিবি প্রধান হারুন

১৮

‘বঙ্গবন্ধু বিচ’ নামকরণের প্রস্তাব বাতিল

১৯

বর্ণাঢ্য আয়োজনে চবি ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের নবীনবরণ

২০
X