জাজিরা (শরীয়তপুর) প্রতিনিধি
প্রকাশ : ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ০১:৩২ পিএম
আপডেট : ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ০২:০৮ পিএম
অনলাইন সংস্করণ

শরীয়তপুরে বৃষ্টির জন্য বিশেষ নামাজ

নামাজ শেষে মোনাজাতে কান্নায় ভেঙে পড়েন মুসল্লিরা। ছবি : কালবেলা
নামাজ শেষে মোনাজাতে কান্নায় ভেঙে পড়েন মুসল্লিরা। ছবি : কালবেলা

তীব্র দাবদাহে বিপর্যস্ত হয়ে উঠেছে সারাদেশের জনজীবন। এমন পরিস্থিতি থেকে পরিত্রাণের জন্য মহান সৃষ্টিকর্তার নিকট দুই রাকাত ইসতিসকার নামাজ আদায় করেছেন শরীয়তপুরের জাজিরা উপজেলার বিভিন্ন বয়সের মুসল্লিরা। নামাজ শেষে বৃষ্টির আশায় বিশেষ মোনাজাত করা হয়। এ সময় মুসল্লিরা কেঁদে কেঁদে বৃষ্টির প্রত্যাশায় দোয়া করেন।

বৃহস্পতিবার (২৫ এপ্রিল) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে জাজিরা শামসুল উলুম কামিল মাদ্রাসার মাঠে কয়েকশ মুসল্লি বিশেষ নামাজে অংশগ্রহণ করেন। বিশেষ নামাজে মোনাজাত পরিচালনা করেন হজরত মাওলানা আব্দুর রব হাসেমী।

আবুল কাসেম নামে এক মুসল্লি বলেন, আমার বয়স ৬০ বছর। আমার জীবনে আমি এমন গরম দেখিনি। এই তীব্র গরম থেকে বাঁচতে আজ বিশেষ নামাজ আদায় করলাম। আল্লাহ পাক যেন বৃষ্টির মাধ্যমে পরিবেশটা শীতল করে দেন।

নামাজে আগত জাহিদ হাসান নামে একজন বলেন, তীব্র খরতাপে সাধারণ মানুষ খুব কষ্টে দিন পার করছে। গরমের তীব্রতায় ঘরে-বাইরে কোথাও শান্তি নেই। সে জন্য আল্লাহর রহমতের আশায় নামাজ আদায় করে বৃষ্টি প্রার্থনা করতে সকলে সমবেত হয়েছে।

জাজিরা কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের ইমাম ও খতিব মাওলানা মুফতি মাহবুবুর রহমান বলেন, টানা দাবদাহে মানুষ খুব কষ্টে আছে। আল্লাহ তায়ালা সালাতের মাধ্যমে বৃষ্টি চাইতে বলেছেন। সেজন্যই সবাই একত্রিত হয়ে ইসতিসকার সালাত আদায় করেছি।

নামাজ ও মোনাজাত পরিচালনাকারী মাওলানা আব্দুর রব হাসেমী বলেন, তীব্র দাবদাহ ও প্রখর রোদে জনজীবন বিপর্যস্ত। এতে পরিবেশের ওপর প্রভাব পড়েছে। শিশুরা অসুস্থ হয়ে পড়ছে। শুধু তাই না তীব্র দাবদাহের কারণে সারাদেশে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। এ কঠিন পরিস্থিতি থেকে পরিত্রাণের জন্য আমরা বিশেষ নামাজ আদায় করলাম।

আবহাওয়া অফিস সূত্রে জানা গেছে, শরীয়তপুরে এক সপ্তাহর বেশি সময় ধরে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৪২ ডিগ্রি থেকে ৩৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসে ওঠানামা করছে। তবে আপাতত তাপমাত্রা কমার কোনো সম্ভাবনা নেই।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

ভোলায় ভেসে গেল কোটি টাকার মাছ

চুয়াডাঙ্গায় আ.লীগ নেতাকে কুপিয়ে জখম

রাজবাড়ী জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম আহ্বায়ককে অব্যাহতি

স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ভরসা মোমবাতির আলো

ঘূর্ণিঝড় রিমাল / লন্ডভন্ড পিরোজপুর উপকূল, শত কোটির ক্ষয়ক্ষতি

চট্টগ্রামে আ.লীগ কর্মীকে ছুরিকাঘাত করে খুন

২০ টাকায় মোবাইলের ফুল চার্জ!

প্রভাবশালীদের দখলে রংপুরের কাফ্রিখাল বিল

মৌমাছি ‘গণহত্যার’ বিচার চাই

ঘূর্ণিঝড়ের রাতে ব্যাংকে ঢুকে পড়ল ডাকাতদল, অতঃপর...

১০

সরকারের কাছে অনেক রূপকথার কাহিনি আছে : রিজভী

১১

ঘূর্ণিঝড় রিমালে হতাহতের ঘটনায় ফখরুলের শোক

১২

হালদাপাড়ে ডিম সংগ্রহকারীদের নির্ঘুম রাত

১৩

খাবার সংকটে জাতীয় দল ছাড়লেন তিন আর্জেন্টাইন ফুটবলার

১৪

সিরাজগঞ্জে স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতার হাতে সাংবাদিক লাঞ্ছিত

১৫

ঋণ দেওয়ার যোগ্যতা নির্ধারণ করবে প্রাইভেট ক্রেডিট ব্যুরো

১৬

বন্ধ হচ্ছে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার রুটের বিশেষ ট্রেন

১৭

এমপি আনারের দেহাংশ উদ্ধার নিয়ে যা বললেন ডিবিপ্রধান

১৮

বিদ্যুৎবিহীন ডেমরাবাসীর ৩০ ঘণ্টা!

১৯

যে প্রক্রিয়ায় চলছে তাসকিনের সেরে ওঠার মিশন

২০
X