কালবেলা প্রতিবেদক
প্রকাশ : ০২ ডিসেম্বর ২০২৩, ০৯:৪০ পিএম
আপডেট : ০২ ডিসেম্বর ২০২৩, ১০:০৯ পিএম
অনলাইন সংস্করণ

ভাগ-বাটোয়ারার নির্বাচন করতে দেবে না জনগণ : রিজভী

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। পুরোনো ছবি
বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। পুরোনো ছবি

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, জনআকাঙ্ক্ষাকে উপেক্ষা করে দেশে ফের একতরফা ভাগ-বাটোয়ারার প্রহসনের নির্বাচনের আয়োজন চলছে। এ জন্য রাষ্ট্রের প্রায় ২ হাজার কোটি টাকা নষ্ট হতে যাচ্ছে। তবে দেশের ১৮ কোটি জনগণ এবার আর এ ধরনের কোনো নির্বাচন করতে দিবে না। তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে ছাড়া কোনো নির্বাচন দেশের মাটিতে হবে না।

তিনি অবিলম্বে ‘একতরফা’ নির্বাচনের সার্কাস বন্ধ এবং সংসদ ভেঙে দিয়ে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে একটি অবাধ-সুষ্ঠু নির্বাচনের দাবি জানান। শনিবার (০২ ডিসেম্বর) রাতে এক ভার্চুয়াল সংবাদ বিফ্রিংয়ে এসব কথা বলেন রিজভী।

বিএনপির এই নেতা বলেন, বাংলাদেশ এখন চরম বিপর্যয়ের মুখে পতিত হয়েছে। বাংলাদেশকে গণতান্ত্রিক বিশ্ব থেকে বিচ্ছিন্ন করে ফেলা হয়েছে। সরকারি দলের লোকজন দেশটাকে তাদের লুটপাটের স্বর্গরাজ্য বানিয়েছে। চরম অর্থনৈতিক মন্দার এমন পরিস্থিতিতে এই পাতানো প্রতিযোগিতাহীন নির্বাচন হবে কি না, তা নিয়ে এই সরকারের মন্ত্রীরাও ঘোরতর সন্দিহান। আওয়ামী লীগ সরকারের শিল্পমন্ত্রী নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন এক সভায় বলেছেন, আমরা বিশাল ষড়যন্ত্রের মধ্যে আছি, আমাদের ৭ তারিখ নির্বাচন, আমরা এখনো জানি না সেটা হবে কি না? একটা অনিশ্চিত অবস্থা।

তিনি বলেন, গণতান্ত্রিক বিশ্বের সমস্ত হুঁশিয়ারি ও আহ্বান উপেক্ষা করে পাতানো ডামি নির্বাচনের সার্কাস করছে এই সরকার। তাদের এই নির্বাচনী প্রহসন জেনে গেছে গোটা বিশ্ব। দেশের জনগণের আন্দোলন এবং গণতান্ত্রিক বিশ্বের সঙ্গে প্রকাশ্যে লড়াইয়ে নেমেছে এই সরকার। অচিরেই তাদের ক্ষমতায় থাকার সাধ চূর্ণ-বিচূর্ণ হয়ে যাবে, এই সরকারের পতন ঘটবে।

রিজভী বলেন, বিশেষ বাহিনী এবং আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে দিয়ে মামলা, হামলা এবং গণগ্রেপ্তার করে বিএনপিসহ ৬০টির বেশি রাজনৈতিক দলকে মাঠ ছাড়া করতে চালানো হচ্ছে অমানুষিক নিপীড়ন। নিম্ন আদালতকে ব্যবহার করে দণ্ড দিয়ে বিএনপির নেতাদের নির্বাচনে অযোগ্য ঘোষণা করা হয়েছে। পরিস্থিতি এমনভাবে তৈরি করা হয়েছে, বিএনপি চাইলেও নির্বাচনে অংশ নিতে পারবে না। এই পাতানো-নিয়ন্ত্রিত নির্বাচনের অন্যতম বৈশিষ্ট্য হলো- প্রধান প্রতিপক্ষকে মাঠ ছাড়া করা এবং তারা যাতে নির্বাচনে অংশ নিতে না পারে তা নিশ্চিত করা। তিনি আন্দোলনের ধারাবাহিকতায় রোববার সকাল থেকে শুরু হতে যাওয়া দেশব্যাপী নবম ধাপের রাজপথ-রেলপথ-নৌপথ অবরোধ কর্মসূচি পালনের জন্য নেতাকর্মীসহ দেশবাসীর প্রতি আহ্বান জানান।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

ঘটনাপ্রবাহ: দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন
  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

সারিয়াকান্দিতে অপহৃত স্কুল শিক্ষার্থীর বস্তাবন্দি লাশ উদ্ধার

বগুড়ায় মাটি খুঁড়তে গিয়ে তিনটি গ্রেনেড উদ্ধার

টাকা-ডলার অদলবদলে রিজার্ভের পালে হাওয়া

শিশু ধর্ষণ মামলায় মাহেন্দ্র চালকের যাবজ্জীবন

সেপটিক ট্যাংকের গর্তে মাটি চাপা পড়ে শ্রমিকের মৃত্যু

ফোনে কথা বলার সময় ট্রেনে কাটা পড়ে মৃত্যু

চাঁদার দাবিতে ৪ তরমুজ চাষিকে কুপিয়ে জখম

চট্টগ্রামের সুগার মিলের আগুন পুড়ল এক লাখ টন চিনি

কর্তৃপক্ষের সমন্বয়হীনতায় পরিস্কার পানি থেকে বঞ্চিত লক্ষাধিক মানুষ

দণ্ডিত মেজর হাফিজ আত্মসমর্পণ করবেন মঙ্গলবার

১০

মেহেরপুরে ৫ ঘণ্টায় ১ তালাক

১১

রোহিঙ্গাদের মর্যাদাপূর্ণ প্রত্যাবর্তন নিশ্চিত করতে হবে : প্রধানমন্ত্রী

১২

তিনশ একর প্যারাবন ২১ দখলদারের কবলে

১৩

১০ মাসে হাতে কোরআন লিখলেন ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী

১৪

সংসদে ১০ মিনিটের জন্য নিজেকে বিরত রাখলেন লতিফ সিদ্দিকী 

১৫

চট্টগ্রামের সুগার মিলের আগুন নিয়ন্ত্রণে

১৬

রমজানে চাকরিজীবীদের কর্মঘণ্টা কমালো আমিরাত

১৭

রাষ্ট্রপতির পুলিশ পদক পেলেন সাতক্ষীরার বায়েজিদ হোসেন 

১৮

চট্টগ্রামে ছাত্রলীগ-যুবলীগ নেতাকর্মীদের বেধড়ক পিটুনি

১৯

সিন্ডিকেটের হাতে জিম্মি সরকার : ভিপি নুর

২০
X