কালবেলা ডেস্ক
প্রকাশ : ১৩ মার্চ ২০২৪, ১২:১২ পিএম
আপডেট : ১৩ মার্চ ২০২৪, ১২:২৬ পিএম
অনলাইন সংস্করণ

বেতন নেবেন না জারদারি, দুর্দশায় পাক কোষাগার

শপথগ্রহণ করেছেন পাকিস্তান পিপলস পার্টি তথা পিপিপির কো-চেয়ারম্যান আসিফ আলি জারদারি। ছবি : সংগৃহীত
শপথগ্রহণ করেছেন পাকিস্তান পিপলস পার্টি তথা পিপিপির কো-চেয়ারম্যান আসিফ আলি জারদারি। ছবি : সংগৃহীত

সম্প্রতি পাকিস্তানের ১৪তম প্রেসিডেন্ট হিসেবে শপথগ্রহণ করেছেন পাকিস্তান পিপলস পার্টি তথা পিপিপির কো-চেয়ারম্যান আসিফ আলি জারদারি। এর মাধ্যমে দ্বিতীয় মেয়াদে রাষ্ট্রের সর্বোচ্চ পদে আসীন হলেন সাবেক পাক প্রধানমন্ত্রী বেনজির ভুট্টোর স্বামী আসিফ আলি জারদারি। অবশ্য এ পদের জন্য কোরবানি করতে হয়েছে স্বয়ং নিজ পুত্রকে। আর দায়িত্ব নিয়েই চমক দেখানোর মতো এক ঘোষণা দিলেন এ রাজনীতিবিদ।

গেল কয়েক বছর ধরেই চরম অর্থনৈতিক সংকটের মধ্যে রয়েছে পাকিস্তান। এক প্রকার নুন আনতে পান্তা ফুরায় অবস্থা উপমহাদেশের পরমাণু শক্তিধর এ দেশটির। এমন অবস্থায় প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব পালন করার বিনিময়ে রাষ্ট্রীয় কোষাগার থেকে কোনো বেতন নেবেন না বলে জানিয়েছেন আসিফ আলি জারদারি।

পাকিস্তান প্রেসিডেন্ট সচিবালয় থেকে এক বিবৃতির মাধ্যমে জানানো হয়, বিরাজমান অর্থনৈতিক চ্যালেঞ্জের পরিপ্রেক্ষিতে প্রেসিডেন্ট জারদারি সিদ্ধান্ত নিয়েছেন যে তিনি রাষ্ট্রপতি হিসেবে কোনো বেতন গ্রহণ করবেন না। দেশের দূরদর্শী আর্থিক ব্যবস্থাপনাকে উৎসাহিত করতেই তিনি এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলে জানায় প্রেসিডেন্ট সচিবালয়। বিবৃতিতে আরও বলা হয়, রাষ্ট্রপতি জাতীয় কোষাগারের ওপর চাপ প্রয়োগ না করাকে অপরিহার্য বলে মনে করেছেন এবং তার বেতন বাতিল করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

আসিফ আলি জারদারির মতো একই ধরণের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন পাকিস্তানের নতুন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মহসিন নকভী। মাইক্রো ব্লগিং সাইট এক্সয়ে দেওয়া এক পোস্টে নতুন এ মন্ত্রী জানান, আলহামদুলিল্লাহ, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণমন্ত্রী হিসেবে জাতির সেবা করার জন্য তিনি সম্মানিত বোধ করছেন। দায়িত্বকালে তিনি তার বেতন ত্যাগ করা ও চলমান কঠিন সময়ে প্রতিটি সম্ভাব্য উপায়ে জাতিকে সমর্থন ও সেবা করতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।

রোববার পাকিস্তানের ১৪তম প্রেসিডেন্ট হিসেবে শপথ নেন আসিফ আলি জারদারি। এর আগে শনিবার দেশটির প্রেসিডেন্ট পদে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। এতে এতে ৪১১ ভোট পান জারদারি। তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী পিকেএমএপির চেয়ারম্যান মেহমুদ খান আচাকজাই পান ১৮১ ভোট।

এ নিয়ে দ্বিতীয়বারের মতো পাকিস্তানের প্রেসিডেন্ট হলেন তিনি। এর আগে ২০০৮ থেকে ২০১৩ পর্যন্ত জারদারি পাকিস্তানের প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব পালন করেন। এবারের নির্বাচনের পর তার পুত্র পিপিপির চেয়ারম্যান বিলাওয়াল ভুট্টো জারদারির প্রধানমন্ত্রী হওয়ার স্বপ্ন ত্যাগ করার বিনিময়ে দ্বিতীয় মেয়াদে এ দায়িত্ব পেলেন জারদারি।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংকে স্নাতক পাসে চাকরি

মেসির সেই ন্যাপকিন কত দামে বিক্রি?

হাইকোর্টের আদেশ সত্ত্বেও যুদ্ধাপরাধীর নামে থাকা স্কুলের নাম বহাল

ব্র্যাক ব্যাংকে অ্যাসোসিয়েট ম্যানেজার পদে নিয়োগ

আজ ঢাকার যেসব এলাকায় গ্যাস কম থাকবে

শনিবার রাজধানীর যেসব এলাকায় যাবেন না

কী ঘটেছিল ইতিহাসের এই দিনে

চাঁদপুরে একদিনেই মারা গেলেন ৩ বীর মুক্তিযোদ্ধা

১৮ মে : আজকের নামাজের সময়সূচি

হামাসের সুড়ঙ্গ থেকে ৩ জিম্মির মরদেহ উদ্ধারের দাবি ইসরায়েলের

১০

মিছিলে গিয়ে শ্রমিক লীগ নেতার মৃত্যু

১১

মাইক্রোবাসের ধাক্কায় প্রাণ গেল ভ্যানচালকের

১২

সকাল ৯টার মধ্যে ৮০ কিমি বেগে ঝড়ের পূর্বাভাস

১৩

শেরপুরে নির্বাচনী পথসভা থেকে ৩ ডেগ বিরিয়ানি জব্দ

১৪

রিকশা চালককে কুকুরের সঙ্গে বেঁধে রাখার ঘটনায় ব্যবসায়ী গ্রেপ্তার

১৫

ঘোড়াশাল পৌর বিএনপির সভাপতি সাত্তার, সম্পাদক দেলোয়ার

১৬

জনগণ যাকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করবে, তার সঙ্গেই আমি কাজ করব : আইনমন্ত্রী

১৭

কক্সবাজার এক্সপ্রেসের বগি থেকে ইঞ্জিন বিচ্ছিন্ন

১৮

ফের আচরণবিধি লঙ্ঘন, ৭ ডেগ খিচুরি জব্দ

১৯

ঘাস কাটতে গিয়ে সাপের কামড়ে যুবকের মৃত্যু

২০
X