গোয়ালন্দ (রাজবাড়ী) প্রতিনিধি
প্রকাশ : ১০ ডিসেম্বর ২০২৩, ১০:৪৩ এএম
অনলাইন সংস্করণ

পাটুরিয়া ও আরিচায় ফেরি চলাচল শুরু

নদী পারাপারের অপেক্ষায় যানবাহন। ছবি : কালবেলা
নদী পারাপারের অপেক্ষায় যানবাহন। ছবি : কালবেলা

ঘন কুয়াশার কারণে সাড়ে আট ঘণ্টা বন্ধ থাকার পর মানিকগঞ্জের পাটুরিয়া ও রাজবাড়ীর দৌলতদিয়া নৌপথে ফেরি চলাচল শুরু হয়েছে। কুয়াশা কেটে যাওয়ায় আজ রোববার (১০ ডিসেম্বর) সকাল সাড়ে ৯টায় ফেরি চলাচল শুরু হয়। এর আগে দুর্ঘটনা এড়াতে শনিবার (৯ ডিসেম্বর) গভীর রাত থেকে ফেরি চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন সংস্থার (বিআইডব্লিউটিসি) আরিচা কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, শনিবার রাত ১০টার পর থেকে পদ্মা নদীর অববাহিকায় পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌপথ কুয়াশাচ্ছন্ন হয়ে পড়ে। একপর্যায়ে কুয়াশার ঘনত্ব বেড়ে গেলে সামান্য দূরের কোনো কিছু দেখা যাচ্ছিল না। এ সময় দৃষ্টিসীমা শূন্যে নেমে এলে রাত ১টার দিকে ফেরি চলাচল বন্ধ করে দেয় কর্তৃপক্ষ। এর আগে উভয় ঘাট থেকে ছেড়ে যাওয়া রো রো (বড়) ফেরি ভাষা শহীদ বরকত, গোলাম মাওলা, ইউটিলিটি (ছোট) ফেরি বনলতাসহ চারটি ফেরি মাঝ নদীতে আটকে পড়ে। ফেরি চারটিতে অন্তত শতাধিক যানবাহন রয়েছে। এ ছাড়া এই নৌপথে পাটুরিয়া ঘাট এলাকায় ছয়টি ও দৌলতদিয়া প্রান্তে একটি ফেরি যাত্রী ও যানবাহন নিয়ে পলটুনে নোঙর করে রাখা হয়। আজ রোববার সকাল সাড়ে ৯টায় এই রুটে ফেরি চলাচল শুরু হয়।

রাজবাড়ী–ঢাকা রুটে চলাচল করা সৌহার্দ্য পরিবহনের দৌলতদিয়া ঘাট তত্ত্বাবধায়ক মো. মনিরুজ্জামান বলেন, ফেরি বন্ধ হয়ে পড়ায় রাজবাড়ী, কুষ্টিয়া, ঝিনাইদহ ছাড়াও দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের কয়েক জেলার অন্তত ৬০টির মতো যাত্রীবাহী বাস নদী পাড়ি দেওয়ার অপেক্ষায় আছে। এর মধ্যে তাদের তিনটি বাস রয়েছে। এসব পরিবহনের কয়েক শ যাত্রী কুয়াশা আর শীতে দুর্ভোগের শিকার হন।

বিআইডব্লিউটিসির আরিচা কার্যালয়ের উপমহাব্যবস্থাপক শাহ মো. খালেদ নেওয়াজ বলেন, ঘন কুয়াশার কারণে পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া এবং আরিচা-কাজিরহাট নৌপথে ফেরি চলাচল বন্ধ রয়েছে। কুয়াশা কেটে গেলে ফেরি চলাচল শুরু হয়। তবে পদ্মা সেতু চালুর পর পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌপথে পারাপার হওয়া গাড়ির সংখ্যা কমে যাওয়ায় এখানে যাত্রীদের আগের মতো ভোগান্তি নেই।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

দুর্ভিক্ষ থেকে মাত্র এক ধাপ দূরে গাজার ৬ লাখ মানুষ : জাতিসংঘ

অজানা রোগে ৪ দিনে ৮ গরুর মৃত্যু

এসএসসি পরীক্ষার প্রশ্নফাঁস, কারাগারে দুই শিক্ষক

ফরাসি অভিনেতার বাড়িতে মিলল ৭২টি বন্দুক

সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্যদের শপথ বিকেলে

নিলাম ছাড়াই সরকারি ব্যারাকের ঘর ভেঙে নিলেন ইউপি সদস্য

ঢাকা আইনজীবী সমিতির ভোটগ্রহণ শুরু 

মৌলভীবাজারে জাতীয় স্থানীয় সরকার দিবস পালিত

নিয়োগ দিচ্ছে মেঘনা গ্রুপ

তামিম নাকি সাকিব, ফাইনালে খেলবে কে

১০

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের অধীনে ৭টি পদে নেবে ১৮১ জন 

১১

ব্রিজ থেকে নদীতে পড়ল বাস, নিহত ৩১

১২

লিপ ইয়ার নিয়ে যেসব তথ্য জানলে অবাক হবেন

১৩

আমের মুকুলে মিষ্টি সুবাস

১৪

ঢাকার যেসব এলাকায় আজ ১৫ ঘণ্টা গ্যাস থাকছে না 

১৫

ঘুরে দাঁড়ানোর স্বপ্ন মৃৎশিল্পীদের

১৬

মধ্যপ্রাচ্যে টিকে থাকতে ইসরায়েলকে যা করতে বললেন বাইডেন

১৭

রাজপথ দখলে আবারও মাঠে নামছে ইমরান খানের পিটিআই

১৮

আ.লীগ নেতার রক্তাক্ত মরদেহ উদ্ধার

১৯

এক শর্তে জাহাজে হামলা বন্ধের বিষয়টি বিবেচনা করবে ইয়েমেন

২০
X