কালবেলা প্রতিবেদক
২৮ জুলাই ২০২৩, ০৫:৪২ পিএম
অনলাইন সংস্করণ

আ.লীগ ক্ষমতা না ছাড়লে ১৮ কোটি মানুষই মারা যাবে : গয়েশ্বর 

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়। পুরোনো ছবি

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেছেন, সম্পদ লুটেরা, ভুমিদূস্যরা আজ বলছে আগামীতে দরকার শেখ হাসিনার সরকার। যারা গণতন্ত্রকামী, যাদের মাঝে দেশপ্রেম আছে তারা এ সরকারকে ক্ষমতায় দেখতে চায় না। তিনি বলেন, অনেকে বলেন- আওয়ামী লীগ ক্ষমতা ছাড়লে লক্ষাধিক লোক মারা যাবে। কিন্তু আওয়ামী লীগ ক্ষমতা না ছাড়লে তো দেশের ১৮ কোটি মানুষই মারা যাবে। অতএব, ক্ষমতা ছেড়ে জনগণের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করুন, নিজেরা মুক্তি পান, দেশ ও জাতিকে মুক্তি দেন।

আরও পড়ুন : এবার আমরা সফল হবোই

শুক্রবার (২৮ জুলাই) বিকেলে ঢাকার নয়াপল্টনে বিএনপির মহাসমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস। প্রধান অতিথি ছিলেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, বিএনপি মানুষের দল। এখানে কোনো কুকুর নেই। সুতরাং অবিলম্বে জনগণের দাবি মেনে নেন। পদত্যাগ করে নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচনের ঘোষণা দেন। গণতন্ত্রের পথে যাবেন না গণতন্ত্রের পথের বাইরে যাবেন? চায়না ও ভারত আপনাকে টাকা দিতে পারে। কিন্তু ভোট তো দিবেন জনগণ। কারণ তারাই দেশের মালিক।

তিনি বলেন, যে দেশের আদালত প্রধানমন্ত্রীর হাতের মুঠোয়, যে দেশের প্রশাসন এক ব্যক্তির হাতে জিম্মি, যে দেশের গণতন্ত্র একজনের জন্য জিম্মি তা থেকে উদ্ধার হতে হলে প্রয়োজন রাজপথ। এই রাজপথ ছাড়া যাবে না।

আরও পড়ুন : সারাদেশের মানুষ আ.লীগকে অনাস্থা দিয়েছে : ড. মঈন খান

গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, সব শক্তির উৎস কর্মীরা। আপনারা আমাদের নতুন মুক্তিযোদ্ধা। আপনারা যারা ঢাকায় আছেন তারা ঢাকায়ই থাকবেন। প্রধানমন্ত্রীর পরিজন কোথায় আছে সবাই জানে। ক্ষমতা হারালে আপনি কোথায় যাবেন ভাবতে থাকেন। রাষ্ট্রীয় সম্পদ লুট করলে তা ফেরত দিয়ে জনগণের কাছে ক্ষমা চান বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

আজ ভোর থেকেও খণ্ড খণ্ড মিছিল নিয়ে ঢাকার বিভিন্ন জায়গা থেকে আসেন নেতাকর্মীরা। ঢাকার বাইরে থেকেও নেতাকর্মীরা আসেন। যদিও তাদের অভিযোগ রয়েছে, ঢাকার প্রবেশমুখে বাধার সম্মুখীন হতে হয়েছে তাদের। সেই বাধা উপেক্ষা করেই হেঁটে হেঁটে নয়াপল্টনে জড়ো হন তারা।

এদিকে, একই সময়ে শুরু হয়েছে আওয়ামী লীগের শান্তি সমাবেশ। রাজধানীর বায়তুল মোকাররমের দক্ষিণ গেটে সমাবেশ করছে দলটি। সেখানেও জড়ো হয়েছেন লাখো নেতাকর্মী। রাজনৈতিক এই দুই দলের সমাবেশ ঘিরে নিরাপত্তা জোরদার করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। ভোর থেকেই মোড়ে মোড়ে বাড়ানো হয়েছে পুলিশি নিরাপত্তা। ঢাকার প্রবেশমুখে বসানো হয়েছিল চেকপোস্ট। এ ছাড়াও নিরাপত্তার স্বার্থে মোতায়েন করা হয়েছে অতিরিক্ত ফোর্স।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

ফরিদপুরে দুই এমপি প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষ, পুলিশসহ আহত ২০

‘আমার সঙ্গে যারা খারাপ করবে, তারা পৃথিবী থেকে নাই হয়ে যাবে’

দ্বিতীয় দিনে আপিলে প্রার্থিতা ফিরে পেলেন যারা

যুক্তরাষ্ট্র নিষেধাজ্ঞা দিলে সেটি হবে রাজনৈতিক : বিকেএমইএ’র সভাপতি

ফিলিস্তিন ইস্যুতে জাতিসংঘে বসছে বিশেষ অধিবেশন

গভীর রাতে ম্যাগনেট পিলার খুঁজতে গিয়ে আটক ৫

একীভূত হচ্ছে দেশের ৯৪৪ প্রাথমিক বিদ্যালয়

সাতক্ষীরায় পেঁয়াজ মজুতের দায়ে ৪ ব্যবসায়ীকে জরিমানা

সোনালী ব্যাংকে অভিযোগ প্রতিকার ও জিআরএস সফটওয়্যারবিষয়ক কর্মশালা

পেঁয়াজের বাজারে অস্থিরতা : যে নির্দেশ দিলেন প্রধানমন্ত্রী

১০

যোগ্য প্রার্থী না পাওয়ায় বাংলাদেশ ব্যাংকের নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি বাতিল

১১

বিশ্বকাপ শুরু ১৯ জানুয়ারি / ভারতের গ্রুপে বাংলাদেশ

১২

জম্মু-কাশ্মীর নিয়ে নতুন সিদ্ধান্ত দিল ভারতের সুপ্রিম কোর্ট

১৩

ঢাকায় ৪০০ টাকায় ৫ কাঠার প্লট, স্বর্ণের ভরি ১৩৩৩

১৪

নির্বাচনী প্রচারে অংশ নেওয়ায় স্বেচ্ছাসেবক দলের ৩ নেতা বহিষ্কার

১৫

সিসিইউতে খালেদা জিয়া 

১৬

হামলা করলে মামলা হবেই, কোনো ছাড়াছাড়ি নেই : ওবায়দুল কাদের

১৭

ছয় মাসেও স্বাস্থ্যকেন্দ্রে মিলছে না সেবা

১৮

সমুদ্রপথে হজে যাওয়ার ব্যবস্থা নেওয়া হবে : মন্ত্রিপরিষদ সচিব

১৯

১৬০০ টন সার নিয়ে কর্ণফুলীতে জাহাজডুবি, নিখোঁজ ১

২০
X