শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ৩০ চৈত্র ১৪৩০
কালবেলা ডেস্ক
প্রকাশ : ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০২:৫১ পিএম
আপডেট : ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০২:৫৪ পিএম
অনলাইন সংস্করণ

মিশিগানে জয় পেলেও স্বস্তিতে নেই বাইডেন

মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। ছবি : সংগৃহীত
মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। ছবি : সংগৃহীত

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডেমোক্র্যাটিক পার্টির মনোনয়ন লড়াইয়ে মিশিগান অঙ্গরাজ্যের প্রাইমারি নির্বাচনে জয় পেয়েছেন বর্তমান মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। তবে মার্কিন সংবাদমাধ্যমগুলো এমন আভাস দিলেও গাজা যুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের নীতি নিয়ে ভোটারদের বিরোধিতার মুখে পড়েছেন বাইডেন। এবারের প্রাইমারি নির্বাচনে উল্লেখযোগ্য সংখ্যক ভোটার তাদের ব্যালটে ‘আনকমিটেড’ (প্রতিশ্রুতিবদ্ধ নয়) ভোট দিয়েছেন। খবর আলজাজিরার।

মিশিগানের প্রাইমারি নির্বাচনে প্রার্থীদের ব্যালট ছাড়াও ‘আনকমিটেড’ নামে একটি ভাগ থাকে। নির্বাচনে দাঁড়ানো কোনো প্রার্থীকেই পছন্দ না হলে ভোটাররা এই আনকমিটেড অংশটি বাছাই করেন। এর মানে হলো দলের আয়োজিত ভোটে অংশ নিলেও প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রার্থীদের ভোট দিতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ নন ভোটাররা।

মিশিগান ৩ লাখ আরব ও মুসলিম ভোটার বসবাস করেন। ২০২০ সালে এই মুসলিম ভোটারদের ভোটের ওপর ভর করে ডোনাল্ড ট্রাম্পকে এই রাজ্যে পরাজিত করেছিলেন বাইডেন। তবে গাজা যুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের নীতি নিয়ে বাইডেনের ওপর ক্ষুব্ধ এসব ভোটার। তাদের কথা মাথায় রেখে মঙ্গলবারের প্রাইমারি নির্বাচনের ব্যালটে ভোটারদের আনকমিটেড অংশ বাছাইয়ের আহ্বান জানানো হয়।

মার্কিন বার্তা সংস্থা অ্যাসোসিয়েটেড প্রেস জানিয়েছে, ২৫ শতাংশ ভোট গণনা শেষ হয়েছে। এতে ৮০ শতাংশ ভোট পেয়েছেন বাইডেন। আর সাড়ে ১৪ শতাংশ ভোটার আনকমিটেড অংশ বাছাই করেছেন। এই ভোটারদের সংখ্যাটা ৩৩ হাজার। যদিও আয়োজকদের উদ্দেশ্যে ছিল ১০ হাজার ভোটার টানা।

এক এক্সবার্তায় আয়োজক দলটি জানিয়েছে, আমাদের আন্দোলন আজ রাতে সফল হয়েছে। আমাদের এই সফলতা প্রত্যাশাকেও ছাড়িয়ে গেছে। মিশিগানের হাজার হাজার ডেমোক্র্যাট, যাদের মধ্যে অনেকেই ২০২০ সালে বাইডেনকে ভোট দিয়েছিলেন, গাজায় যুদ্ধ নীতির কারণে তার পুনর্নির্বাচনে ভোট দিতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ নয়।

চলতি বছরের নভেম্বরে মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এ নির্বাচনে পরবর্তী প্রেসিডেন্ট বেছে নেবেন আমেরিকানরা। নির্বাচনী দৌড়ে রিপাবলিকান পার্টি থেকে ট্রাম্প এবং ডেমোক্র্যাট পার্টি থেকে বর্তমান প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এগিয়ে আছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের রাজনীতিতে মিশিগান অঙ্গরাজ্য দোদুল্যমান রাজ্য হিসেবে পরিচিত। এর মানে হলো এই রাজ্যে যে কোনো দলের প্রার্থী জয়ী হতে পারেন। ফলে আগামী প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জয়-পরাজয় নির্ধারণে বড় ভূমিকা রাখবে রাজ্যটি।

২০১৬ সালের নির্বাচনে মিশিগানে ১০ হাজার ভোটের ব্যবধানে জয় পেয়ে প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছিলেন ট্রাম্প। এর চার বছর পর ২০২০ সালের নির্বাচনে মিশিগানে ২ দশমিক ৮ শতাংশ ভোটের ব্যবধানে ট্রাম্পকে হারিয়েছিলেন বাইডেন। সেবার তিনি ট্রাম্পের চেয়ে ১ লাখ ৫৪ হাজার ভোট বেশি পেয়েছিলেন। রাজ্যটির ৩ লাখ মুসলিম ভোটারকে এই ব্যবধান সৃষ্টির পেছনের কারিগর বলে মনে করা হয়।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

আড্ডা দিচ্ছিলেন ছাত্রলীগ কর্মীরা, অতর্কিত হামলায় আহত ৪

চৈত্রসংক্রান্তি আজ

১৩ এপ্রিল : নামাজের সময়সূচি

দুদিন বন্ধের পর আজ থেকে মেট্রোরেল চালু 

মার্কিন ঘাঁটিতেও হামলার হুমকি ইরানের

বিমান থেকে সংকেত দেখেই দ্বীপ থেকে তিন নাবিককে উদ্ধার

বাস ও মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে দুই মাদ্রাসাছাত্র নিহত

সৌদি আরবে গাড়ির নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে প্রাণ গেল বাংলাদেশির

এবারই প্রথম স্বস্তিতে মানুষ ট্রেন ভ্রমণ করছেন : রেলমন্ত্রী

খুলনায় ইজিবাইকের ধাক্কায় প্রাণ গেল শিশুর

১০

দিনদুপুরে তরুণীকে নির্যাতন, ভিডিও ভাইরাল

১১

ঈদে পর্যটকে মুখরিত মাধবকুণ্ড জলপ্রপাত

১২

‘বাঙালিত্বের সঙ্গে ধর্মের কোনো সংঘর্ষ নেই’

১৩

খুলনায় দুর্বৃত্তদের গুলিতে আ.লীগের তিন নেতা গুরুতর আহত

১৪

সিদ্ধান্ত থেকে সরে দাঁড়াল বান্দরবান প্রশাসন

১৫

ইরান-ইসরায়েল উত্তেজনা চরমে, মার্কিন রণতরীর অবস্থান পরিবর্তন

১৬

দুঃসংবাদ দিল আবহাওয়া অফিস

১৭

মসজিদের টাকার হিসাবকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষ, আহত ১২

১৮

স্ত্রী-সন্তানকে মাংস কিনে খাওয়াতে না পারায় চিরকুট লিখে আত্মহত্যা

১৯

মারাঠা বর্গীদের মতো দেশে লুটপাট চলছে : বিএসপিপি 

২০
*/ ?>
X