যবিপ্রবি প্রতিনিধি
প্রকাশ : ০৯ মার্চ ২০২৪, ০৫:৫১ পিএম
অনলাইন সংস্করণ

যবিপ্রবিতে শিক্ষার্থীকে মারধর, বিচারের দাবিতে দুদিনের আল্টিমেটাম

প্ল্যাকার্ড হাতে মানববন্ধন করেন ক্লাইমেট অ্যান্ড ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট (সিডিএম) বিভাগের শিক্ষার্থীরা। ছবি : কালবেলা
প্ল্যাকার্ড হাতে মানববন্ধন করেন ক্লাইমেট অ্যান্ড ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট (সিডিএম) বিভাগের শিক্ষার্থীরা। ছবি : কালবেলা

যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (যবিপ্রবি) থাপ্পড় দিয়ে এক শিক্ষার্থীর কান ফাটানোর ঘটনায় বিচারের দাবিতে মানববন্ধন ও অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছেন শিক্ষার্থীরা।

শনিবার (৯ মার্চ) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে বিভিন্ন লেখা প্ল্যাকার্ড হাতে নিয়ে মানববন্ধন ও অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছেন ক্লাইমেট অ্যান্ড ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট (সিডিএম) বিভাগের শিক্ষার্থীরা।

মানববন্ধন থেকে তারা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে দুই (০২) দিনের আল্টিমেটাম দিয়ে অভিযুক্ত রোটার‌্যাক্ট ক্লাবের সভাপতি আকিব ইবনে সাইদকে স্থায়ী বহিষ্কারসহ তিন দফা দাবি উত্থাপন করেন।

এ সময় তারা ‘আমার ভাই আহত কেন, প্রশাসন জবাব চাই’, ‘অভিযুক্ত আকিবের বহিষ্কার চাই’, ‘সন্ত্রাসীদের কালো হাত, ভেঙে দাও গুঁড়িয়ে দাও’- সহ বিভিন্ন স্লোগান দিতে থাকে।

মানববন্ধনে শিক্ষার্থীরা বলেন, কুড়িয়ে পাওয়া কর্কশিটকে কেন্দ্র করে রোটারেক্ট ক্লাবের সভাপতি থাপ্পড় মেরে কানের পর্দা ফটিয়ে ফেলবে, আবার চোর বলে অপবাদও দিবে এটা আমরা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী হিসেবে কখনোই মেনে নিতে পারি না। বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন শিক্ষার্থী হয়ে অপর শিক্ষার্থীকে কারণ ছাড়াই চোর বলে কীভাবে! বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি ক্লাবের সভাপতির মতো দায়িত্বের জায়গা থেকে এমন সন্ত্রাসী কার্যক্রম করলে, বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্যরা কী শিখবে? এ ঘটনার পরে ক্যাম্পাসে আমরা আমাদের নিরাপত্তা নিয়ে শঙ্কিত। আমরা এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত সাপেক্ষে অভিযুক্ত আকিবের স্থায়ী বহিষ্কার চাই।

কর্মসূচির একপর্যায়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ও সহকারী প্রক্টররা উপস্থিত হয়ে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলেন। এসময় শিক্ষার্থীরা তিন দফা দাবিসহ ওই ঘটনার বিচার চেয়ে দুই কার্য দিবসের আল্টিমেটাম দেয়। শিক্ষার্থীদের দাবিগুলো হলো- ভুক্তভোগী সুমনের চিকিৎসার সব খরচ বহন করা, দুই কার্যদিবসের মধ্যে সুষ্ঠু তদন্ত সাপেক্ষে কার্যকরী পদক্ষেপ নেওয়া এবং অভিযুক্ত আকিব ইবনে সাঈদকে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্থায়ী বহিষ্কার করা।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. মো. হাফিজ উদ্দিন বলেন, আমরা ভুক্তভোগীর থেকে লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। এ ঘটনায় তিন সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। দ্রুত সময়ের মধ্যে ঘটনার তদন্ত করে কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

উল্লেখ্য, রঙ করা ককশিট কুড়িয়ে নিয়ে যাওয়াকে কেন্দ্র করে সুমন কুমার মণ্ডল নামের এক ছাত্রকে সজোরে থাপ্পড় মারেন আকিব ইবনে সাঈদ। এ সময় জ্ঞান হারিয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন ভুক্তভোগী ওই ছাত্র। এরপর তাকে যশোর সদর হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসা করা হয়।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

স্মার্ট বাংলাদেশের অগ্রযাত্রায় নিয়ে সভা আজ

বুধবার ঢাকার যেসব এলাকায় যাবেন না

ইতিহাসের এই দিনে স্মরণীয় যত ঘটনা

২২ মে : নামাজের সময়সূচি

অবসরের পরেও চেয়ারে তিনি, ৩ দিনে ৩৪ কোটি টাকার ঘুষ

নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতায় শিক্ষার্থী নিহত

বিনা টিকিটে ১২ বছর রেল ভ্রমণ, অতঃপর...

বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে নারী শ্রমিককে যৌন হয়রানি

ইন্টারন্যাশনাল স্ট্যান্ডার্ড ইউনিভার্সিটির ইংরেজি বিভাগের প্রথম জার্নাল প্রকাশিত

প্রেসিডেন্সি ইউনিভার্সিটিতে ‘সেমিস্টার ডে ২০২৪’ উদ্‌যাপন

১০

ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি শ্রাবণের ওপর হামলার অভিযোগ

১১

খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থার খোঁজ নিলেন ফখরুল

১২

যুক্তরাষ্ট্রের কাছে ধরাশায়ী হলো বাংলাদেশ

১৩

রাজধানীতে বিটিআরসির অভিযান, সরঞ্জামাদি জব্দ

১৪

৫৪ মণ ওজনের গরু প্রধানমন্ত্রীকে উপহার দিতে চান হামিদা

১৫

নরসিংদীতে বিদ্যুৎস্পর্শে ঝলসে গেছে দুই শিক্ষার্থী

১৬

হবিগঞ্জে খড়ের গাদা থেকে পড়ে কৃষকের মৃত্যু

১৭

কুমিল্লায় শিশু হত্যা মামলায় যুবকের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

১৮

মৌলভীবাজারে গরম মসলার বাজারে অভিযান

১৯

শাবি কর্মচারী ইউনিয়নের সভাপতি রমজান, সম্পাদক জাবেদ

২০
X