শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ৩০ চৈত্র ১৪৩০
কালবেলা প্রতিবেদক
প্রকাশ : ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০৮:৩৫ পিএম
অনলাইন সংস্করণ

বিপিএম পদকে ভূষিত হলেন মো. মাজহারুল ইসলাম

পুলিশ
মো. মাজহারুল ইসলাম

কর্মদক্ষতা, সততা ও প্রশংসনীয় কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ বাংলাদেশ পুলিশ পদক (বিপিএম)-সেবা পদকে ভূষিত হলেন মো. মাজহারুল ইসলাম। মঙ্গলবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) সকালে রাজারবাগ পুলিশ লাইনস্ প্যারেড গ্রাউন্ডে এ পদক প্রদান করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এবারের পুলিশ সপ্তাহের প্রথম দিন সাহসিকতা ও বীরত্বপূর্ণ কাজের স্বীকৃতি হিসেবে ৪০০ পুলিশ সদস্যকে বাংলাদেশ পুলিশ পদক (বিপিএম) ও রাষ্ট্রপতির পুলিশ পদক (পিপিএম) পরিয়ে দেন প্রধানমন্ত্রী।

মো. মাজহারুল ইসলাম গত ২০/০১/১৯৯১ তারিখে বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনীতে সহকারী পুলিশ সুপার হিসেবে যোগদান করেন। ০১/১২/২০২০ থেকে ১০/০৯/২০২২ পর্যন্ত অ্যাডিশনাল আইজি (এইচআরএম) হিসেবে এবং ১১/০৯/২০২২ থেকে অদ্যাবধি অ্যাডিশনাল আইজি (লজিস্টিকস্ অ্যান্ড অ্যাসেট অ্যাকুজিশন) হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছেন। অ্যাডিশনাল আইজি (এইচআরএম) হিসেবে দায়িত্ব পালন করার সময় নিয়োগ ব্যবস্থাপনায় স্বচ্ছ, দুর্নীতিমুক্ত, যুগোপযোগী নিয়োগ প্রক্রিয়া ও আধুনিক প্রশিক্ষণ কার্যক্রমে নেতৃত্ব প্রদান করছেন। বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনীর জন্য মানসম্পন্ন পোশাক পরিচ্ছেদ, আভিযানিক সক্ষমতা বৃদ্ধি কল্পে যন্ত্রপাতিসামগ্রী, যানবাহন, আধুনিক অস্ত্রশস্ত্র মেডিকেল ও শল্যচিকিৎসাসামগ্রী ক্রয়ে অবদান রেখেছেন। এ ছাড়াও ২০২০ সালের করোনা মহামারিতে উল্লেখযোগ্য কার্যক্রমের মাধ্যমে সাধারণ জনগণের সেবা নিশ্চিত করেছেন। যা তার পেশাগত দায়িত্বে ভিন্ন মাত্রা যোগ করেছেন। নিম্নে তার উল্লেখযোগ্য কার্যক্রম সংক্ষেপে আলোকপাত করা হলো-

স্বচ্ছ নিয়োগ প্রক্রিয়ার অবদান বাংলাদেশ পুলিশের নিয়োগ প্রক্রিয়ায় ডিজিটালাইজেশন, পরীক্ষা পদ্ধতি পরিবর্তন, দক্ষ জনবল বাছাইয়ে বিভিন্ন ধাপ সংযোজনের ফলে নিয়োগ প্রক্রিয়া স্বচ্ছ ও দুর্নীতিমুক্ত হয়েছে। যা পুলিশ সম্পর্কে সাধারণ জনগণের আস্থা অর্জনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে। এ ছাড়া পুলিশের বিভাগীয় পদোন্নতি পরীক্ষায় আধুনিকীকরণ ও স্বচ্ছ প্রক্রিয়ার উদ্ভাবন করেছেন, যা পুলিশ বাহিনীর মনোবল বৃদ্ধিতে সহায়তা করেছে।

মো. মাজহারুল ইসলাম বাংলাদেশ পুলিশের জন্য অভ্যন্তরীণ ও বৈদেশিক বিভিন্ন আধুনিক মানসম্মত প্রশিক্ষণ ব্যবস্থা চালুকরণে ব্যাপক ভূমিকা পালন করেছেন। এ ছাড়া প্রতিটি পুলিশ সদস্যের জন্য দক্ষত উন্নয়ন কোর্স চালু করেছেন, যা পুলিশ বাহিনীর জন্য ভিন্নমাত্রা সংযোজন করেছে।

এ ছাড়াও সরকারি অর্থের সঠিক ব্যবস্থাপনা, বাংলাদেশ পুলিশের পোশাক পরিচ্ছদসামগ্রী, পুলিশের আধুনিকীকরণে বিভিন্ন যন্ত্রপাতি, অস্ত্রশস্ত্র ও গোলাবারুদ, মেডিকেল ও শল্যচিকিৎসাসামগ্রী ইত্যাদি ক্রয়ে সততা, নিষ্ঠা ও দুর্নীতি প্রতিরোধে ব্যাপক অবদান রেখেছেন তিনি। বিভিন্ন ক্রয় কমিটির সভাপতি হিসেবে সততা, নিষ্ঠা ও পেশাদারিত্বের সঙ্গে সরকারি অর্থের সাশ্রয় ও সঠিক ব্যবস্থাপনায় অবদান রেখেছেন।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

বিশ্বসেরা বিশ্ববিদ্যালয় তালিকায় বুয়েটের অবস্থান কত?

আ.লীগের দুপক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১

মুন্সীগঞ্জে আ.লীগের দুপক্ষের সংঘর্ষ, গুলিবিদ্ধ ২

আড্ডা দিচ্ছিলেন ছাত্রলীগ কর্মীরা, অতর্কিত হামলায় আহত ৪

চৈত্রসংক্রান্তি আজ

১৩ এপ্রিল : নামাজের সময়সূচি

দুদিন বন্ধের পর আজ থেকে মেট্রোরেল চালু 

মার্কিন ঘাঁটিতেও হামলার হুমকি ইরানের

বিমান থেকে সংকেত দেখেই দ্বীপ থেকে তিন নাবিককে উদ্ধার

বাস ও মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে দুই মাদ্রাসাছাত্র নিহত

১০

সৌদি আরবে গাড়ির নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে প্রাণ গেল বাংলাদেশির

১১

এবারই প্রথম স্বস্তিতে মানুষ ট্রেন ভ্রমণ করছেন : রেলমন্ত্রী

১২

খুলনায় ইজিবাইকের ধাক্কায় প্রাণ গেল শিশুর

১৩

দিনদুপুরে তরুণীকে নির্যাতন, ভিডিও ভাইরাল

১৪

ঈদে পর্যটকে মুখরিত মাধবকুণ্ড জলপ্রপাত

১৫

‘বাঙালিত্বের সঙ্গে ধর্মের কোনো সংঘর্ষ নেই’

১৬

খুলনায় দুর্বৃত্তদের গুলিতে আ.লীগের তিন নেতা গুরুতর আহত

১৭

সিদ্ধান্ত থেকে সরে দাঁড়াল বান্দরবান প্রশাসন

১৮

ইরান-ইসরায়েল উত্তেজনা চরমে, মার্কিন রণতরীর অবস্থান পরিবর্তন

১৯

দুঃসংবাদ দিল আবহাওয়া অফিস

২০
*/ ?>
X