চৌদ্দগ্রাম (কুমিল্লা) প্রতিনিধি
প্রকাশ : ২৫ মে ২০২৪, ০৪:০৬ এএম
অনলাইন সংস্করণ

কালাচাঁনের সকাল-বিকেলের নাস্তা পরোটা ও ফল

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামের কালাচাঁন। ছবি : কালবেলা
কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামের কালাচাঁন। ছবি : কালবেলা

নাম তার কালাচাঁন। ডাক দিলেই এদিক-সেদিক তাকায়। এখন সবার মুখে মুখে নাম তার। সকাল কিংবা বিকেলের নাস্তায় পরোটার পাশাপাশি সে খেতে পছন্দ করে আপেল, মাল্টা ও পেয়ারা। নিয়ম করে তাকে করানো হয় গোসলও।

তবে রাতে বিদ্যুৎ চলে গেলে চিৎকার শুরু করে কালাচাঁন। বাধ্য হয়ে লাইট জ্বালিয়ে ফ্যানের বাতাস দিতে হয়।

কালাচাঁনের বয়স এখন তিন বছর। ছোটবেলা থেকে তরতাজা এবং স্বাস্থ্যবান হওয়ায় আলাদা করে সেবা-যত্ন করা হয় তার। মাথায় চাঁদের মতো একটি তীর চিহ্ন থাকায় শখ করে মালিক নাম রাখেন কালাচাঁন। সেই থেকে বাড়ির ছোট বড় সকলেই এ নামে ডাক দিলে ডানে-বামে তাকায় সে। তবে অপরিচিত লোক দেখলেই চিৎকার শুরু করে।

জানা গেছে, কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম উপজেলার শুভপুর ইউনিয়নের কটপাড়া গ্রামের আবদুর রশিদ মিয়াজী তিন বছর আগে কালো রংয়ের বাছুরসহ একটি গরু কেনেন। সেই বাছুরটিই এখন বড় হয়ে প্রায় ২৪ মণ ওজনের হয়ে গেছে। প্রতিদিন সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত গরুটিকে দেখতে বিভিন্ন স্থান থেকে উৎসুক জনতা ও ক্রেতারা ভিড় জমাচ্ছেন রশিদ মিয়াজীর বাড়িতে।

কালাচাঁনের মালিক আবদুর রশিদ মিয়াজী বলেন, পরিবারের সদস্যদের ইচ্ছায় বাছুরটিকে আলাদাভাবে যত্ন নেওয়া হয়েছে। সম্পূর্ণ দেশীয় খাবার ঘাস, খৈল, ভুষি, কুড়া ও খড়সহ বিভিন্ন ফল খাইয়ে তাকে বড় করা হয়েছে।

স্বাচ্ছন্দে গরুটি যেকোনো ক্রেতা কিনতে পারেন উল্লেখ করে চৌদ্দগ্রাম উপজেলা প্রাণিসম্পদ সম্প্রসারণ কর্মকর্তা ডা. নাহিদ হাসান বলেন, কোনো প্রকার ভিটামিন ও মেডিসিন ছাড়াই প্রাকৃতিক উপায়ে কালাচাঁনকে লালন-পালন করা হয়েছে।

প্রতিবছরই কোরবানির সময় বড় গরুগুলো মানুষের আগ্রহের কেন্দ্রবিন্দুতে থাকে। দামও পাওয়া যায় বেশি। পারিবারিকভাবে লালন-পালন করায় ক্রেতাদের আগ্রহ থাকে এই সব গরুতে। তাইতো কোরবানির ঈদকে সামনে রেখে সারাদেশে আলোচনার মূল বিষয় কালাচাঁনরা।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

বাসের ধাক্কায় নারীসহ নিহত ২

খোঁজ মিলল বিলাসী ভেড়ার, দাম ৮০ লাখ

ছেলেকে বাঁচাতে যাওয়ায় বাবাকে পানিতে চুবিয়ে হত্যা

ইসরায়েলের স্পর্শকাতর লক্ষ্যবস্তুর ফুটেজ প্রকাশ করল লেবাননের যোদ্ধারা

খুলে দেওয়া হলো তাহিরপুরের পর্যটন স্পট

সেনাপ্রধান হিসেবে দায়িত্ব নিলেন ওয়াকার-উজ-জামান

এসিআইয়ে ক্যারিয়ার গড়ার সুযোগ, কর্মস্থল ঢাকা

আ.লীগ মানুষের কল্যাণে রাজনীতি করে : এলজিআরডি প্রতিমন্ত্রী

ছাত্রলীগ নেতা-নেত্রীর অন্তরঙ্গ ভিডিও ভাইরাল

খালেদা জিয়ার আরোগ্য কামনায় মোহাম্মদপুরে দোয়া মাহফিল 

১০

খালেদা জিয়া জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে : ফখরুল

১১

মতিউরের দুর্নীতি তদন্তে দুদকের ৩ সদস্যের টিম গঠন

১২

থানচি ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা শিথিল

১৩

হোটেলে নারী পুলিশের সঙ্গে ধরা, ডেপুটি সুপার হলেন কনস্টেবল

১৪

বিশ্বকাপে আফগানদের জয় আর অঘটন নয়, সাধনার ফল!

১৫

হাসপাতালে যাওয়ার পথে ট্রাকচাপায় বৃদ্ধের মৃত্যু

১৬

স্নাতক পাসে ব্র্যাক ব্যাংকে চাকরি

১৭

বিএনপি স্বাধীনতাবিরোধীদের তোষণ না করলে দেশ আরও এগিয়ে যেত : পররাষ্ট্রমন্ত্রী

১৮

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অনার্স চতুর্থ ও ডিগ্রি দ্বিতীয় বর্ষের ২ পরীক্ষা স্থগিত

১৯

বুয়েটে কেন্দ্রীয় মন্দিরের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন

২০
X