কালবেলা ডেস্ক
প্রকাশ : ২৫ নভেম্বর ২০২৩, ০৯:০৫ এএম
অনলাইন সংস্করণ

স্বাধীন ফিলিস্তিন রাষ্ট্র কেমন হবে, জানালেন মিসরের প্রেসিডেন্ট

মিসরের প্রেসিডেন্ট আবদেল ফাত্তাহ আল-সিসি। ছবি : সংগৃহীত
মিসরের প্রেসিডেন্ট আবদেল ফাত্তাহ আল-সিসি। ছবি : সংগৃহীত

ইসরায়েল ও হামাসের যুদ্ধের জেরে আবারও নতুন করে আলোচনায় স্বাধীন ফিলিস্তিন রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার বিষয়টি। স্বাধীন ফিলিস্তিন স্বাধীন রাষ্ট্র কেমন হতে পারে, তা নিয়ে একটি প্রস্তাব দিয়েছেন মিসরের প্রেসিডেন্ট আবদেল ফাত্তাহ আল-সিসি। তিনি বলেছেন, ফিলিস্তিন রাষ্ট্রকে নিরস্ত্রীকরণ করা হতে পারে। নিজস্ব সেনাবাহিনীর পরিবর্তে সেখানে একটি অস্থায়ী আন্তর্জাতিক নিরাপত্তা বাহিনী অবস্থান করতে পারে।

গতকাল শুক্রবার (২৪ নভেম্বর) এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানিয়েছে কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আলজাজিরা।

আল-সিসি বলেন, আমরা বলেছি, ফিলিস্তিন রাষ্ট্রকে নিরস্ত্রীকরণ করতে আমরা প্রস্তুত। যত দিন এই দুই রাষ্ট্রের (ফিলিস্তিন ও ইসরায়েল) নিরাপত্তা নিশ্চিত না হবে তত দিন ফিলিস্তিনে ন্যাটো বাহিনী, জাতিসংঘ বাহিনী, আরব বা আমেরিকান বাহিনী অবস্থান করতে পারে।

গতকাল শুক্রবার (২৪ নভেম্বর) কায়রোয় স্পেনের প্রধানমন্ত্রী পেদ্রো সানচেজ ও বেলজিয়ামের প্রধানমন্ত্রী আলেকজান্ডার ডি ক্রুর সঙ্গে একটি যৌথ সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেছেন তিনি।

মিসরের প্রেসিডেন্ট বলেন, আমরা ১৯৬৭ সালের সীমান্তের ওপর ভিত্তি করে ফিলিস্তিনি রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার আহ্বান জানিয়ে আসলেও রাজনৈতিকভাবে তার কোনো সমাধান এখনো আসেনি।

এর আগে যুদ্ধ শেষে গাজার নিরাপত্তার জন্য সেখানে সেনা পাঠানোর বিষয়টি নাকচ করে দিয়েছে আরব বিশ্বের দেশগুলো। গত ৭ অক্টোবর থেকে হামাসকে নির্মূলের নামে গাজায় নির্বিচারে হামলা করে আসেছে ইসরায়েল। এরই মধ্যে ইসরায়েলি হামলায় ১৪ হাজারের বেশি ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে।

জর্ডানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আয়মান সাফাদি এই সপ্তাহে লন্ডনে সাংবাদিকদের বলেছেন, গাজা উপত্যকায় সেনা পাঠানোর কোনো ইচ্ছে আরবদের নেই। কেননা ইসরায়েলের হামলার কারণে উপত্যকাটি পরিত্যক্ত ভূমিতে পরিণত হতে পারে।

কালবেলা অনলাইন এর সর্বশেষ খবর পেতে Google News ফিডটি অনুসরণ করুন

মন্তব্য করুন

ঘটনাপ্রবাহ: ফিলিস্তিন-ইসরায়েল সংঘাত
  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

ঘূর্ণিঝড়ে কবর থেকে বের হলো বৃদ্ধার লাশ, পাঁচ মাস পরেও অক্ষত

ঘূর্ণিঝড় রিমাল / সর্বোচ্চ রেকর্ড বৃষ্টিপাত চাঁদপুরে

চট্টগ্রামে ভালোবাসায় সিক্ত এভারেস্টজয়ী বাবর

৪১ ঘণ্টা বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন আখাউড়া

আ.লীগ নেতাকে গুলি করে হত্যা

বোয়ালখালী উপজেলা নির্বাচন / জাহেদুল হকের বিরুদ্ধে ইউএনও এবং ওসিকে টাকা দেওয়ার অভিযোগ

রাজধানীতে প্রাইভেটকারের ওপর ভেঙে পড়ল গাছ

অর্থমন্ত্রী ও সচিবকে স্মারকলিপি / মুক্তিযোদ্ধাদের ভাতা ৫০ হাজার টাকা করার দাবি মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের

নিষিদ্ধ গোষ্ঠীর তালিকা থেকে তালেবানের নাম সরাচ্ছে রাশিয়া

ঢাকেশ্বরী মন্দিরের দানবাক্স লুটের চেষ্টা, পুলিশের ভূমিকা রহস্যজনক

১০

বিমানে ছিল ১৪৮ যাত্রী, যান্ত্রিক গোলযোগে দাউ দাউ করে জ্বলে উঠল ইঞ্জিন!

১১

মাছ শিকারের দারুণ কৌশল দারকি

১২

উদ্ভাবন ছাড়া টেকসই উন্নয়ন সম্ভব নয় : ঢাবি উপাচার্য

১৩

মধ্যরাতে জবির মসজিদে ছাত্রী, কী ঘটেছিল সেদিন!

১৪

বাগেরহাটে গাছচাপা পড়ে নারীর মৃত্যু

১৫

এমপি আনার হত্যা : যশোর থেকে অভিযুক্ত শিমুলের সহযোগী গ্রেপ্তার

১৬

পারমাণু বোমা তৈরির দ্বারপ্রান্তে ইরান

১৭

নারায়ণগঞ্জে ধর্ষণ মামলায় যুবকের যাবজ্জীবন

১৮

ঘূর্ণিঝড় রিমালের তাণ্ডবে লন্ডভন্ড মনপুরা

১৯

চাঁদপুরে ফের দেখা মিলল ভয়ংকর রাসেল ভাইপারের

২০
X